Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2022/05/mobile-buying-guide.html

মোবাইল কেনার আগে যা জানা দরকার

মোবাইল কেনার আগে যা জানা দরকার — এখনকার সময়ে একটি ভালোমানের স্মার্টফোন ক্রয় করার ইচ্ছা সকলেরই থাকে। অনেকেই আবার ভাবে মোবাইল ফোনের দাম বেশি হলেই উক্ত মোবাইল ফোনটি সবচেয়ে সেরা মোবাইল ফোন। কিন্ত হ্যাঁ আপনি কি জানেন কমদামে ও আপনি একটি ভালো মানের মোবাইল ফোন কিনতে পারেন। সেজন্য আপনাকে মোবাইল ফোনের কিছু বিষয় সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে হবে। তাহলে চলুন জেনে নিই মোবাইল ফোন কেনার আগে আপনাকে যেসকল বিষয়ে সম্পর্কে জানা প্রয়োজন।

মোবাইল কেনার আগে যা জানা দরকার

পেজ সূচীপত্রঃ মোবাইল কেনার আগে যা জানা দরকার

১। মোবাইল ফোনের ডিসপ্লেঃ একটি নতুন অথবা পুরাতন মোবাইল ফোন কেনার আগে আপনাকে অবশ্যই মোবাইলের ডিসপ্লে কেমন বা কি রকম তা দেখে নিতে হবে। মোবাইলের ডিসপ্লে ৫ ইঞ্চি থেকে ৬ ইঞ্চি কিনা দেখুন। যদি ফোনের ডিসপ্লে ৫ ইঞ্চি থেকে ৬ ইঞ্চি হলে তবে তা দেখতে বেশ ভালো লাগে। ভালোভাবে দেখে নিবেন মোবাইলের ডিসপ্লেটি ফুল HD কিংবা HD+ কি-না। যদি মোবাইলের ডিসপ্লে HD কিংবা HD+ হয় তাহলে আপনি ভালোভাবে ভিডিও দেখতে এবং সুন্দরভাবে গেমিং করতে পারবেন।

আরো পড়ুনঃ মোবাইল ফোন গরম হলে কি করনীয়

২। মোবাইলের র‍্যাম দেখে কিনুনঃ যদি আপনি মোবাইল ফোন কোন রকম সমস্যা ব্যতীত দীর্ঘ সময় ব্যবহার করতে চান। তাহলে মোবাইল ফোনের র‍্যাম কত জিবি সেটা ভালোভাবে দেখে নিন। মোবাইল ফোনের র‍্যাম কম হলে বিভিন্ন ধরনের সমস্যা দেখা যাবে। উল্লেখযোগ্য সমস্যা গুলো হলো হঠাৎ করে মোবাইল হ্যাং হয়ে যাবে, স্লো কাজ করবে, মোবাইলে ভালো কোনো গেমিং রান করতে পারবেন না। 

তাই আপনি একটি মোবাইল কেনার আগে ফোনের র‍্যাম ৩ জিবি থেকে ৪ জিবি র‌্যামের বেশি মোবাইল কেনার চেষ্টা করবেন। বেশি র‍্যাম যুক্ত ফোন কেনার কারণে আপনি কোনো ধরনের সমস্যা ছাড়াই মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে পারবেন।

৩। প্রসেসরঃ প্রিয় পাঠক একটি মোবাইলের র‍্যামের মতো ফোনের প্রসেসর অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। একটি মোবাইল কেনার আগে অবশ্যই আপনি প্রসেসর স্পীড কোরের দিকে লক্ষ্য রাখবেন। কোনো মোবাইল ফোনের র‍্যাম যদি বেশি হয়ে থাকে কিন্ত প্রসেসর তেমন ভালো না হয়ে থাকে অর্থাৎ প্রসেসর দুর্বল হয়ে থাকে তাহলে উক্ত মোবাইল ফোনটি হ্যাং হয়ে যাবে। 

তাই আপনি যখন মোবাইল কিনবেন তখন সেই মোবাইল ফোনের প্রসেসর একটু ভালোভাবে দেখে কিনার চেষ্টা করবেন। একটি মোবাইল কেনার সময় চেষ্টা করবেন ফোনের প্রসেসর 1.5GHz থেকে 2.0HGz এর বেশি কিনার। তাহলে আপনি মোবাইল ফোনটি কোনো প্রকার সমস্যা ছাড়াই দীর্ঘ সময় ব্যবহার করতে পারবেন।

৪। ফোনের ব্যাটারিঃ একটি মোবাইল ফোনের ব্যাটারির গুরুত্ব অনেক বেশি। আপনার মোবাইল ফোনের ব্যাটারি যদি ভালো না হয় তাহলে আপনি মোবাইল ফোনটি ব্যবহার করে তেমন মজা পাবেন না। ফোনের ব্যাটারি ভালো না হলে খুব দ্রুত চার্জ ফুঁড়িয়ে যাবে। আপনি দীর্ঘ সময় ধরে গেমিং, ভিডিও সহ ইত্যাদি আরো অনেক কাজ করতে পাবেন না। 

একটি মোবাইল কেনার আগে ভালোভাবে দেখে নিবেন ফোনটিতে Battery MaH কত। মোবাইলের ব্যাটারি MaH যতবেশি হবে উক্ত মোবাইলটিতে তত দীর্ঘ সময় ধরে চার্জ থাকবে। আপনি মোবাইলে ১ বার চার্জ করে অনেক লম্বা সময় ব্যবহার করতে পারবেন। চেষ্টা করবেন মোবাইলের Battery 4000 MaH এর বেশি কিনার। 

আরো পড়ুনঃ মোবাইলে ডাটা খরচ কমানোর উপায়

৫। ক্যামেরাঃ আমরা সকলেই একটি মোবাইল কেনার আগে যেই জিনিস সবচেয়ে বেশি দেখি তা হচ্ছে মোবাইল ফোনের ক্যামেরা। একটি মোবাইল ফোনের ক্যামেরা মেগাপিক্সেল যতবেশি হবে সেই মোবাইলে ততবেশি পরিমাণে ভালোমানের ছবি উঠানো যাবে। এখনকার সময়ে মোবাইল ফোন গুলোতে ক্যামেরার মেগাপিক্সেল অনেক বেশি দেওয়া হয়। তবে হ্যাঁ একটি ভালো কোয়ালিটির ছবি তোলার জন্যে ১৩ মেগাপিক্সেলের ব্যাক ক্যামেরা এবং ফন্ট ক্যামেরা ৮ মেগাপিক্সেল হলেই যথেষ্ট।

৬। ইন্টারনাল স্টোরেজঃ ইন্টারনাল স্টোরেজ বা ফোন মেমরি একটি মোবাইলের জন্যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। একটি মোবাইল কেনার আগে অবশ্যই আপনি ভালোভাবে দেখে নিবেন ফোনের ইন্টারনাল স্টোরেজ কত জিবি। একটি মোবাইল ফোনের মেমরি যতবেশি হবে আপনি ঠিক মোবাইল ফোনটি ইউজ করে ততবেশি শান্তি পাবেন। 

ফোন মেমরি যতবেশি হবে আপনার ইচ্ছা মতো গেম এবং অ্যাপ ডাউনলোড করতে পারবেন। যদি আপনি একটি মোবাইল কিনতে চান তাহলে চেষ্টা করবেন মিনিমাম ৩২ জিবি উপরে কেনার। যদি আপনি ৩২ জিবির কম ফোন মেমোরির মোবাইল ফোন কিনেন তাহলে খুব তাড়াতাড়ি মেমোরি ফুল হয়ে যাবে। যার ফলস্বরূপ ফোনটি স্লো কাজ করবে এবং ল্যাগিং বেশি হবে।

৭। মোবাইলের ডিজাইন এবং স্টাইলঃ মোবাইল ফোন কেনার সময়ে আপনাকে অবশ্যই মোবাইলের ডিজাইন কি রকম সেটা ভালোভাবে দেখে নিতে হবে। মোবাইল ফোনের কালার ও ওজন কেমন সেটা দেখে নিবেন। মোবাইলের ওজন যত কম এবং পাতলা হবে ফোনটি দেখতেও তেমন বেশি সুন্দর লাগবে। আর হ্যাঁ মোবাইল ফোনের কালার আপনার পছন্দ অনুযায়ী সিলেক্ট করবেন।

৮। ফিচার এন্ড ফাংশনঃ একটি মোবাইল ফোন কেনার সময় অবশ্যই আপনি দেখে নিবেন মোবাইল টিতে কি কি ফিচার এবং ফাংশন রয়েছে। যেমনঃ ফেসলক, এন্ড্রয়েড ভার্সন, প্রসেসর, ফিঙ্গার প্রিন্ট, ওয়াইফাই, হটসপট, ব্লুটুথ, ইউএসবি ইত্যাদি এই সকল ফিচার এন্ড ফাংশন গুলো দেখবেন ঠিকঠাক ভাবে দেওয়া রয়েছে কি-না।

৯। মোবাইলের ব্র্যান্ড দেখুনঃ আপনি যে মোবাইল ফোনটি কিনবেন সেটা যেনো ভালো ব্যান্ডের হয়। কেননা ব্যান্ডের মোবাইল ফোন গুলোতে দারুন সকল ফিচার আছে। আর কম দাম দিয়েও ভালো মোবাইল কিনতে পারবেন।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?