Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2021/12/youtube-video-ideas-for-beginners.html

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে - একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করার জন্য 20টি সেরা বিষয় — আপনি কি ইউটিউবিং ক্যারিয়ার শুরু করতে চাচ্ছেন? আপনার কি ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া কিংবা ইউটিউবের জন্যে ভিডিও তৈরির আইডিয়া জানা দরকার? তাহলে আপনার জন্যই মূলত আমাদের আজকের এই আর্টিকেল। 

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে

কারণ আজকের এই আর্টিকেল আমরা লাভজনক ২০টি ইউটিউব চ্যানেলের আইডিয়া বা ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে সেই সম্পর্কে আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করবো যেগুলো থেকে যেকোনো একটি দিয়েই আপনি শুরু করতে পারেন আপনার পছন্দের ইউটিউব ক্যারিয়ার।

পেজ সূচীপত্রঃ

ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া

আপনারা নিশ্চয়ই জানেন যে, ইউটিউব বর্তমান সময়ে শুধুমাত্র আর বিনোদনের মাধ্যম হিসাবেই পরিচিত না। বর্তমানে মানুষ ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করছে বিভিন্ন কন্টেন্টের উপর ভিডিও আপলোড করে। বিনোদনের সঙ্গে সঙ্গে এর মাধ্যমে ইউটিউব থেকে টাকা আয় করছে বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ। 

রান্নাবান্না, রিভিউ, খেলাধুলা, ব্লগ, লাইফস্টাইল, ভ্রমণ, কার্টুন চরিত্র, ফানি ভিডিও বা মজার ভিডিও ইত্যাদির উপরে ভিডিও কনটেন্ট তৈরি করে ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করার মাধ্যমে ইউটিউব থেকে আয় করছে অনেকেই।

আজকে এই আর্টিকেলে আমরা আলোচনা করব ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে বা লাভজনক ২০টি ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া সম্পর্কে যাতে করে এই ২০টি আইডিয়ার যেকোনো একটি আইডিয়া নিয়ে আপনি আপনার ইউটিউবের ক্যারিয়ার শুরু করতে পারেন। ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে সম্পর্কে জানতে আজকের এই আর্টিকেলটি শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত মনোযোগ সহকারে পড়ুন। তো চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক আলোচনার বিষয়বস্তু সম্বন্ধে।

আরও পড়ুনঃ ইউটিউব চ্যানেল ভেরিফাই করার নিয়ম

ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া কেন প্রয়োজন

ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া ও ইউটিউব কন্টেন্ট আইডিয়া সম্বন্ধে বলতে গেলে বলতে হয় আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি মূলত কিসের উপরে ভিত্তি করে তৈরি করবেন, সেটা সম্পর্কে আপনাকে সর্বপ্রথম নির্বাচন করতে হবে। আর এটাই হচ্ছে মূলত কন্টেন্ট আইডিয়া। যেমনঃ মনে করেন আপনি যদি ইসলামি গান বা ওয়াজ, গজল, ইসলামিক ভিডিও তৈরি করতে চান তাহলে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের নাম ও কন্টেন্ট সম্পূর্ণ ইসলামিক গান, ওয়াজ ও গজলের উপরে ভিত্তি করে তৈরি করতে হবে। 

এছাড়াও যদি আপনি রান্না করতে ভালোবাসেন এবং রান্না ও রেসিপি সম্পর্কে ভিডিও তৈরি করতে চান তাহলে আপনার ইউটিউব চ্যানেলের নাম রান্না, রেসিপির উপর ভিত্তি করে চ্যানেল তৈরি করতে হবে। উদাহরণস্বরূপ ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া কিংবা নাম করণ এমন হতে পারে যে, সেরা কুকিং রেসিপি, Best Cooking Recipe, Village Cooking Channel, New Cooking Recipes Idea ইত্যাদি।

প্রতিনিয়ত ইউটিউবে মূলত বিভিন্ন ধরনের ভিডিও আপলোড করছে বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ। আমরা পূর্বের বিভিন্ন পোস্টে বলেছি ইউটিউবে প্রতি ১ মিনিটে ৫০০ ঘণ্টারও বেশি ভিডিও আপলোড করা হয়ে থাকে। তাই এই ইউটিউব অর্থাৎ ভিডিও প্লাটফরম এর জনপ্রিয়তা যেমন বেশি ঠিক তেমনি ভাবে এর রয়েছে অনেক কম্পিটিশনও। 

তাই যেকোনো বিষয়ের উপরে যেমন তেমন কোনো ভিডিও ইউটিউবে আপলোড করে দিলেই সফলতা চলে আসবেনা কিংবা ইউটিউব থেকে আসানারুপ আয় করাটাও সম্ভবপর হবেনা। মূলত এই জন্য আপনার ভালো ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া সম্পর্কে ধারণা থাকা প্রয়োজন কিংবা ইউটিউব কন্টেন্ট আইডিয়া সম্পর্কে ধারণা থাকা প্রয়োজন। তাই আপনার চিন্তাকে সহজতর করতে ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে সেসসকল বিষয় সম্পর্কে নিচে আলোচনা করা হলোঃ

আপনি দেখুন, যেমনটি আমি আগেই বলেছি, আপনাকে এমন একটি বিষয় নিয়ে আপনার নিজস্ব YouTube চ্যানেল তৈরি করতে হবে যা মানুষ আজকাল ইন্টারনেটে প্রচুর সার্চ করে। তাই এমন কিছু সম্পর্কে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করুন যা এই বর্তমান সময়ের মানুষেরা জানতে খুবই আগ্রহী।

এটি অনেক লোককে আপনার ভিডিও দেখার সুযোগ দেবে এবং আপনার অর্থ উপার্জনের সম্ভাবনাও বৃদ্ধি পাবে। এছাড়াও, মানুষের প্রয়োজন নেই এমন ভিডিও আপলোড করবেন না এতে করে বিশৃঙ্খলতা থেকে আপনি পরিত্রাণ পাবেন, আপনার ইউটিউব চ্যানেলে শুধুমাত্র ভালো জিনিস রাখুন।

ইউটিউবে ইনকাম করার জন্য, আপনাকে এমন একটি বিষয়ের উপর একটি ভিডিও বানাতে হবে যা ইউটিউবে খুব বেশি সার্চ করা হয় এবং যার উপর আপনার প্রচুর জ্ঞান রয়েছে। নীচে আমি আপনাকে এমন কিছু বিষয় বলব যা ইউটিউবে প্রচুর সার্চ করা হয় এবং আপনি সহজেই এটি সম্পর্কে একটি ভিডিও তৈরি করতে পারেন। নিচের টপিক ভিত্তিক ইউটিউব চ্যানেলগুলো বর্তমানে প্রচুর টাকা আয় করছে।

আরও পড়ুনঃ ইউটিউব চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার বাড়ানোর উপায়

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে

তাই আমি আপনাকে বলি যে আপনি যদি একটি ইউটিউবে ভালো জিনিসের ভিডিও না রাখেন তবে সম্ভবত আপনার ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইবার থাকবে না। কারণ আজকের সময়ে খুব ভালো ভিডিও তৈরি করা প্রয়োজন এবং ভিডিওতে কোয়ালিটি ও গুণমান থাকা প্রয়োজন। প্রথমে আমি আপনাকে এখানে এমন 20টি টপিক আইডিয়া বলবে যেগুলি আপনি আপনার চ্যানেলটিকে বৃদ্ধি করতে ব্যবহার করতে পারেন। ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে তা জেনে নেইঃ

১। গেমিং ভিডিও - গেমিং চ্যানেল

প্রথমত, আমরা গেমিং চ্যানেল সম্পর্কে কথা বলব। আপনি যদি গেমিং ভিডিওগুলিকে ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করতে পারেন তবে আপনার চ্যানেল খুব শীঘ্রই জনপ্রিয়তা লাভ করবে এবং খুব শীঘ্রই আপনি আপনার চ্যানেলে অনেক বেশী ভিউ পাবেন এবং আপনার ইউটিউব চ্যানেলে ভালো সাবস্ক্রাইবারও থাকবে। ইউটিউব ক্যারিয়ারের সহজেই সফলতা অর্জন করার জন্য আপনি গেমিং ভিডিও নিয়ে কাজ করতে পারেন।

আপনি যদি ইউটিউবে গেমের ভিডিওগুলি সম্পর্কে সার্চ করেন তবে আপনি খুব ভালো এবং জনপ্রিয় জনপ্রিয় ভিডিও গেমিং চ্যানেলগুলি দেখতে পাবেন এবং আপনি সেগুলিতে প্রচুর ভিউ এবং সাবস্ক্রাইবার দেখতে পারবেন। কারণ বর্তমান সময়ে, খুব ভালো চ্যানেলগুলি গেমিং ভিডিও তৈরি করে এবং গেমিং ভিডিওগুলির চ্যানেলগুলি সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়তা লাভ করে।

সাম্প্রতিক কর্পোরেট কেলেঙ্কারির ফলে এই গেমিংয়ের চাহিদা উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। আপনি আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারে গেম খেলতে পারেন, সেগুলি রেকর্ড করতে পারেন এবং আপনার চ্যানেলে গেমপ্লে ভিডিও আপলোড করতে পারেন। আজকাল, এই ধরণের গেমিং চ্যানেলগুলি খুব দ্রুত জনপ্রিয়তা অর্জন করছে।

আরও পড়ুনঃ ইউটিউব কেন অনলাইনে আয় করার সহজ উপায়?

২। টেক নিউজ ও ইলেকট্রনিক্স গ্যাজেট রিভিউ করে

ইউটিউব ক্যারিয়ারে সহজে সফলতা লাভ করার জন্য ইউটিউব চ্যানেলে মোবাইল, কম্পিউটার, টিভি, ঘড়ি ইত্যাদি ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেট সম্পর্কে রিভিউ ভিডিও তৈরি করতে পারেন। কিংবা ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেট গুলোকে কিভাবে ব্যবহার করতে হয় অথবা কিভাবে ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেট ব্যবহার করলে ভালো হবে সে সকল বিষয়ের উপরে ভিডিও বানিয়ে ইউটিউবে আপলোড করতে পারেন। যদি আপনি ভালো মোবাইল রিভিউ, কম্পিউটার, ল্যাপটপ সম্পর্কে ভিডিও বানাতে পারেন তবে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি খুব সহজে অনেক বড় করতে পারবেন।

আর ইউটিউব চ্যানেল জনপ্রিয়তা লাভ করলেই অন্যান্য ইউটিউব চ্যানেল থেকে বেশি বেশি টাকা আয় করতে পারবেন। বর্তমান সময়ে আমাদের দেশে ইলেকট্রিক্যাল গেজেটের কোনো অভাব নেই আপনি যেকোনো ইলেকট্রিক্যাল গ্যাজেটের উপরে ভিত্তি করেই ভিডিও কন্টেন্ট বানাতে পারেন। এছাড়াও আপনারা টেক নিউজ দেওয়ার জন্য একটি ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারেন। যে চ্যানেল শুধুমাত্র টেক নিউজ দেওয়ার জন্য ব্যবহার করা হবে। বর্তমানে অনেকেই আছেন যারা চ্যানেলে টেক নিউজ দেয়।

আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলে টেক নিউজ সম্পর্কে ভিডিও তৈরি করে আপলোড করতে পারেন। বর্তমান সময়ে এই জাতীয় চ্যানেলগুলি অনেক বেশি এগিয়েছে, আপনি ইউটিউবেও এমন অনেক চ্যানেল দেখতে পারবেন, যেগুলো অনেক বেশি জনপ্রিয় এবং এই জাতীয় চ্যানেলের প্রচুর ভিজিটর এবং সাবস্ক্রাইবার রয়েছে। তাই আপনি ইউটিউব ক্যারিয়ারে সহজেই সফল হতে চাইলে টেক নিউজ সম্পর্কে ভিডিও আপলোড করতে পারেন।

৩। কমেডি ভিডিও

বর্তমান সময়ে কমেডি ভিডিও অনেক চলে এবং আপনি এটাও করে দেখতে পারেন। আপনি ইউটিউবে অনেক কমেডি ভিডিও দেখতে পারবেন, তাই আপনি কমেডি ভিডিওর একটি চ্যানেল তৈরি করতে পারেন। কারণ বর্তমান সময়ে কমেডি ভিডিওগুলো খুবই জনপ্রিয় ভিডিও হিসেবে বিবেচিত হয়। আর এই ভিডিওগুলো ছাড়াও খুব ছোট 5 থেকে 7 মিনিটের কমেডির আরও বেশি ভিডিও রয়েছে এবং আপনি মোবাইল থেকেও তৈরি করতে পারেন। 

এই কাজটি খুব সহজ এবং আপনি যদি শিশুদের নিয়ে কমেডি ভিডিও তৈরি করেন তবে আরও বেশি জনপ্রিয় হবে। ইউটিউবে কমেডি ভিডিও তৈরি করে সহজেই সফলতা অর্জন করতে পারবেন। কারণ কমেডি ভিডিওতে প্রচুর পরিমাণে ভিউ হয় যার কারণে চ্যানেলে সাবস্ক্রাইবার বাড়তে থাকে। আপনি যদি কমেডি ভিডিও দিয়ে ইউটিউব সফলতা লাভ করতে চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই আপনার চ্যানেলের জন্য কমেডি ভিডিও তৈরি করতে হবে এবং আপনার চ্যানেল থেকে অনেক বেশি আয় করতে পারবেন।

আমাদের দেশসহ সারাবিশ্বে বরাবরের মতোই সবসময় বিনোদন মূলক ইউটিউব চ্যানেলের চাহিদা প্রতিনিয়ত বৃদ্ধি হতেই চলেছে। যদি আপনি অন্য কোনো মানুষকে হাসাতে পারেন তবে ইউটিউবে বিনোদনমূলক চ্যানেলগুলো আপনার জন্যে তাই আপনি বিনোদনমূলক ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারেন। 

যদি আপনি মানুষকে ভালোভাবে বিনোদন দিতে পারেন কিংবা হাসাতে পারেন তবে আপনি খুবই সহজে আপনার ইউটিউব চ্যানেলটিকে বিশাল বড় করতে পারবেন। বিনোদন মূলক কিংবা মানুষকে হাসানোর ভিডিওগুলো বানানো তুলনামূলক একটু কঠিন কিন্ত আপনি যদি পারেন তাহলে চেষ্টা করে দেখতে পারেন।

আরও পড়ুনঃ ইউটিউব থেকে আয় করার ৫টি উপায়

৪। প্রোডাক্টের ভিডিও

প্রোডাক্টের ভিডিও হল সেই ভিডিওগুলি যখন মার্কেটে কোনো নতুন আইটেম চলে আসে, তখন তার উপর একটি ভিডিও তৈরি করা। যেমন একটি নতুন টি-শার্ট, প্যান্ট বা মোবাইল, ল্যাপটপ, বাইক, ঘড়ি, ক্যামেরা, ড্রোন, ব্যাগ বা যেকোনো আইটেম নিয়ে ভিডিও তৈরি করা। যখন বাজারে নতুন কোনো আইটেম আসবে তখন আপনি সেই সম্পর্কে একটি ভিডিও তৈরি করে সেই প্রোডাক্টের তথ্য দিতে পারেন মানুষের কাছে। 

প্রোডাক্টের ভিডিও আপনার চ্যানেলের জন্যও হতে পারে একটি খুব ভালো ভিডিও আইডিয়া এবং আপনি প্রোডাক্ট ভিডিওতে প্রচুর পরিমাণে ভিউ পাবেন। কারণ বর্তমান সময়ে কেউ আর বাইরে গিয়ে কিছু দেখে না, তাই আপনি যদি একজন প্রফেশনাল ইউটিউবার হতে চান তাহলে প্রোডাক্টের ভিডিও নিয়ে কাজ করতে পারেন। অবশ্যই আপনার প্রোডাক্টের ভিডিওগুলি মানুষ দেখবে কারণ বেশিরভাগ মানুষ বর্তমানে ইন্টারনেট ব্যবহার করে এবং তারা যদি আপনার ভিডিও দেখে তবে তারাও উপকৃত হবে এবং আপনার চ্যানেল থেকে আপনিও উপকৃত হবেন।

৫। প্রাঙ্ক ভিডিও

প্রাঙ্ক ভিডিও হচ্ছে মজার ও হাসির ভিডিও। বর্তমানে ইউটিউব প্রাঙ্ক ভিডিও অনেক বেশি জনপ্রিয়। আপনি যদি প্রাঙ্ক করতে ভালো পারেন তাহলে আপনি প্রাঙ্ক ভিডিও দিয়ে একটি ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারেন। প্রাঙ্ক ভিডিও হলো মজার ভিডিওর মতোই তবে এটি একটি ভিন্ন ধরনের ভিডিও, এর অর্থ কাউকে চমকে দেওয়া, কারো সাথে প্র্যাঙ্ক করা।

আপনি ইউটিউবে এরকম অনেক প্রাঙ্ক ভিডিও দেখতে পারবেন আপনি সেই ভিডিওগুলি ভালোভাবে দেখুন এবং সেই ভিডিওগুলি কীভাবে তৈরি করা হয়েছে তা লক্ষ্য করুন। আপনি আপনার চ্যানেলে এই জাতীয় ভিডিওগুলিও আপলোড করতে পারেন, এতে করে আপনার চ্যানেলটি অনেক বেশি ভাইরাল হবে এবং আপনার চ্যানেল উপকৃত হবে এবং আপনিও উপকৃত হবেন।

৬। টেকনোলজি

বর্তমান সময়ে ইন্টারনেটে ব্লগ, ইউটিউবে কী কী ভিডিও আছে বলুন? মানুষ ইন্টারনেটে প্রযুক্তি এবং প্রযুক্তির সাথে সর্বত্র পোস্ট করছে। কারণ প্রযুক্তি আজ বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় বিষয়গুলির মধ্যে একটি। তাই আপনি যদি এই বিষয়ে একটি ভিডিও বানান তাহলে আপনার ভিডিও অনেক মানুষ দেখবে এবং অনেক ইনকাম হবে।

আরও পড়ুনঃ গুগল থেকে টাকা ইনকাম | গুগল থেকে টাকা আয়

৭। অ্যাপ রিভিউ

আজকাল অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ প্রায় সকলেই ব্যবহার করে। আমি এবং আপনি সকলেই মোবাইলে নতুন অ্যাপ ইনস্টল করা উপভোগ করি। কিন্তু, আমরা সমস্ত অ্যাপস সম্পর্কে জানি না এবং তাই ইন্টারনেটে থাকা লোকেরা নতুন এবং আকর্ষণীয় অ্যাপগুলি সম্পর্কে জানতে পারলে অনেক বেশি ভালো হয়ে যায়।

সুতরাং, আপনি গুগল প্লে স্টোরে যেতে পারেন সেরা অ্যাপস সম্পর্কে জানতে একটি ভিডিও তৈরি করতে এবং আপনার চ্যানেলে আপলোড করতে পারেন। বর্তমান সময়ে এই বিষয়ে ইউটিউব ভিডিও আপলোড করলে অনেক বেশি লাভবান ও সফল হতে পারবেন।

৮। মোবাইল ফোন রিভিউ

আজ অনেকেই মোবাইল ফোন রিভিউ এর মাধ্যমে ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করছেন। এবং আপনি যদি চান, আপনি আপনার চ্যানেলে নতুন মোবাইল রিভিউ তৈরি করে এবং তাদের সম্পর্কে সবকিছু বলে ভিডিও তৈরি করতে পারেন। আপনি মোবাইল সম্পর্কে সবকিছু যত ভালোভাবে ভেঙে ফেলবেন, তত বেশি মানুষ আপনার ভিডিও পছন্দ করবে। ইউটিউবে মোবাইল ফোন রিভিউ বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে।

৯। টিউটোরিয়াল ভিডিও তৈরি করা

বর্তমানে সবাই তাদের চ্যানেলে কিছু টিউটোরিয়াল ভিডিও আপলোড করে তাদের চ্যানেলকে সফল করছে। এর কারণ হল টিউটোরিয়াল ভিডিওগুলি ইন্টারনেটে সর্বাধিক জনপ্রিয় এবং তাই লোকেরা ইউটিউবে বিভিন্ন ধরণের টিউটোরিয়াল সার্চ করতে থাকে। টিউটোরিয়াল ভিডিওগুলি এমন কিছু সম্পর্কে ভিডিও যা আপনাকে কিছু ব্যাখ্যা করে। মানে যেকোনো কিছু কিভাবে করতে হয়, কিভাবে কোন জিনিসের শুরুটা করতে হয়। এছাড়াও এডুকেশনাল ভিডিও তো থাকছেই।

১০। রান্নার ভিডিও তৈরি করা

আপনি যদি নতুন খাবার রান্না করতে ভালোবাসেন তবে আপনি YouTube-এ নিজের রান্নার ভিডিও তৈরি করে সাফল্য অর্জন করতে পারেন। আপনি নিজেই নতুন নতুন খাবার তৈরির ভিডিও তৈরি করে এবং তাদের সাথে কীভাবে রান্না করবেন তা দেখিয়ে আপনার নিজের খাবার ভিডিও চ্যানেল চালাতে পারেন।

আরও পড়ুনঃ বাংলাদেশি app দিয়ে টাকা ইনকাম | টাকা ইনকাম করার সহজ উপায় বাংলাদেশে

১১। ব্লগিং টিপস

আজকাল মানুষ ব্লগিং শেখার জন্য ইন্টারনেটে অনেক তথ্য সার্চ করে। সুতরাং, আপনি যদি ব্লগিং এবং ওয়ার্ডপ্রেস সম্পর্কিত টিউটোরিয়াল ভিডিও তৈরি এবং আপলোড করতে পারেন, তবে সেই চ্যানেলটি জনপ্রিয় হবে।

১২। খেলাধুলা সম্পর্কে চ্যানেল

যদি আপনি খেলাধুলাকে অনেক বেশি পছন্দ করেন তবে খেলাধুলা সম্পর্কে চ্যানেল হতে পারে আপনার জন্যে একটি দারুন ইউটিউব কন্টেন্ট আইডিয়া। কারণ আপনি যেটা করতে পছন্দ করেন সেটা নিয়েই ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করলেন। যার কারণে এই ইউটিউব চ্যানেল থেকে সফলতা পাওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি। ইউটিউব চ্যানেলে আপনি খেলার সম্বন্ধে দুর্দান্ত সকল আইডিয়া উপস্থাপন করতে পারেন। মোবাইল গেম এবং কম্পিউটার গেম নিয়ে ভিডিও তৈরি করতে পারেন। সঙ্গে সঙ্গে বিশ্বের সকল খেলাধুলার হাইলাইটস গুলো উপস্থাপন করতে পারেন। 

নতুন নতুন মোবাইল গেম বা কম্পিউটার গেম নিয়ে ভিডিও আপলোড করতে পারেন। বর্তমানে নতুন নতুন ভার্সনের গেম ডেভেলপ হচ্ছে যেগুলো নিয়ে আপনি ভিডিও তৈরি করে ইউটিউব চ্যানেল দাঁড় করাতে পারেন। যেমনঃ নতুন গেমটি খেলতে কেমন হবে, গেম খেলার নিয়ম-কানুন, নতুন গেমের কি কি সুবিধা ও অসুবিধা রয়েছে এই সকল সম্বন্ধে আপনি ভিডিও তৈরি করে আপনার চ্যানেলকে অনেক বেশি জনপ্রিয় করে তুলতে পারবেন।

১৩। অনলাইন আয়ের টিপস নিয়ে ইউটিউব চ্যানেল

আজকাল সবাই ঘরে বসে অনলাইনে আয় করার নতুন উপায় খুঁজছে। সুতরাং, আপনি ভিডিওর মাধ্যমে ইন্টারনেটে সর্বশেষ আয়ের টিপস এবং টিউটোরিয়াল শেয়ার করতে পারেন। মানুষ এই ধরনের ভিডিও খুব পছন্দ করে।

১৪। এডিটিং সম্পর্কে ইউটিউব চ্যানেল

মুখ না দেখিয়ে ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া? আমি মনে করি সবচেয়ে ভালো কাজ হচ্ছে এডিটিং। কারণ আপনি যদি কোনো ফটোশপের এডিটিং নিয়ে ভিডিও তৈরি করেন, তাহলে সেটি আপনার ভিডিওকে খুব জনপ্রিয় করে তোলে এবং এটি আপনার ইউটিউব চ্যানেলকে অনেক জনপ্রিয় করে তুলবে। 

কারণ বর্তমান সময়ে খুব ভালো ফটোশপ সফটওয়্যার আসছে এবং প্রতিটি মানুষ সেলফি তুলতে আনন্দিত হয় এবং ফটোশপের সাহায্য তাদের ফটো রেখে একটি খুব ভালো উপায়ে তাদের ছবি এডিট করতে পারেন এবং একটি খুব ভালো ফটো তৈরি করতে পারেন যা তাদেরকে খুব খুশি করে তোলে। 

তাই আপনি যদি আপনার ভিডিওতে সেই সফ্টওয়্যার বা ফটোশপ সম্পর্কে তথ্য দেন, তাহলে আপনার ভিডিওতে আপনার প্রচুর ভিউ এবং সাবস্ক্রাইবার থাকবে। তাই আমি বিশ্বাস করি আপনি যদি ইউটিউবে সহজেই সফল হতে চান তাহলে অবশ্যই আপনি এডিটিং সম্পর্কে একটি ভিডিও তৈরি করুন। 

এডিটিং এর ভিডিও আপলোড করে আপনার চ্যানেলটি মাত্র কয়েক দিনের মধ্যে একটি ভালো চ্যানেলে পরিণত করতে পারবেন। আপনি যদি এডিটিং সম্পর্কে ভালো তথ্য দিতে পারেন এবং তাহলে এডিটিং সম্পর্কে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে পারেন।

আরও পড়ুনঃ ভিডিও দেখে টাকা ইনকাম করার উপায়

১৫। জাদু নিয়ে ইউটিউব চ্যানেল

ইউটিউবে সহজে সফল হওয়ার জন্য আপনিও ম্যাজিকের উপর অনেক ভিডিও বানাতে পারেন। কারণ আমরা যদি ইউটিউবে জাদু সম্পর্কে সার্চ করে থাকি, তাহলে আমরা জাদু সম্পর্কে লক্ষাধিক খুব ভালো ভিডিও পাবো বা ম্যাজিক সম্পর্কিত ভিডিও পাবো। বর্তমান সময়ে জাদু সম্পর্কে অনেক বড় বড় ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে। তাই আপনি যদি ইউটিউব চ্যানেলে কাজ করতে চান তাহলে জাদু সম্পর্কে ভিডিও দিতে পারেন।

আপনি ইউটিউবে ম্যাজিক সম্পর্কিত ভিডিও তৈরি করতে পারেন। কিন্তু আপনার যদি একটি মাত্র জাদু জানা থাকে তবে আপনি ভিডিও তৈরি করবেন না। কারণ আপনি অনেক ভিডিওতে একই ধরণের জাদু দেখাতে পারবেন না। কারণ একটি জাদুর দিয়ে আপনি ইউটিউবে সফল হতে পারবেন না। যদি আপনার অনেক যাদু জানা থাকে তবে আপনি জাদু দিয়ে খুব ভাল ভিডিও তৈরি করতে পারেন। 

এছাড়াও আপনি অন্যের জাদুর ভিডিও দেখেও ভিডিও বানাতে পারেন। ভিডিওর ভিতরে ভিন্ন কিছু যুক্ত করে আপনি সেই ভিডিওটি বানিয়ে আপনার চ্যানেলে আপলোড করুন যার ফলে আপনার ভিডিওর ভিউও বাড়বে এবং আপনিও বেশি বেশি সাবস্ক্রাইবার পাবেন। তবে আপনি অন্যের আপলোড করা ভিডিওটি আপনার চ্যানেলে কপি করবেন না।

১৬। জীবনী নিয়ে ইউটিউব চ্যানেল

আপনি যে কারোর জীবনী নিয়ে ভিডিও তৈরি করতে পারেন তবে আপনার কিছু মহান মানুষের জীবনী নিয়ে ভিডিও বানানো উচিত। কারণ আপনি যদি একজন মহান ব্যক্তির জীবনী ভিডিও তৈরি করি তবে আমরা বেশি উপকৃত হবে। কারণ আমরা যদি কিছু অজানা বা ছোট মানুষের জীবনী নিয়ে ভিডিও তৈরি করি তবে আমাদের কারো উপকার হবে না।.

ধরুন, আপনি যদি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী তাঁর জীবনী বা তাঁর সম্পর্কে অন্য কোনো তথ্য সম্পর্কে একটি ভিডিও বানান যা মানুষ কম জানে, আপনি সেই তথ্যটি আপনার ইউটিউব ভিডিওর ভিতরে দেবেন, তাহলে আপনার ইউটিউব ভিডিওটি খুব দ্রুততার সাথে, খুব অল্প সময়ে, আরও বেশি ভিউ হবে এবং আপনার চ্যানেলটিও জনপ্রিয় হবে। মনে রাখা ভালো আপনি যে সম্পর্কিত ভিডিও তৈরি করবেন তবে আপনার সেগুলি সম্পর্কে সম্পূর্ণ জ্ঞান থাকতে হবে। আপনি যদি তাদের সম্পর্কে জানেন তবেই কেবল তাদের সম্পর্কে ভিডিও তৈরি করুন। আর আপনার কাছে যদি কোনো তথ্য না থাকে, তাহলে আপনি এগুলো তৈরি করবেন না। 

১৭। অনুপ্রেরণা মূলক ইউটিউব চ্যানেল

ইউটিউবে আপনি অনুপ্রেরণা মূলক ভিডিও নিয়ে কাজ করতে পারেন। আপনি অনুপ্রেরণা সম্পর্কিত ভিডিও বানাতে পারেন যাতে লোকেরা অনুপ্রাণিত হয় এবং লোকেরা অন্যায় কাজ করার অভ্যাস না করে। যেমন আপনি মদ, বিড়ি, সিগারেটের মতো যে কোনও বিষয়ে ভিডিও বানাতে পারেন। এছাড়াও বিখ্যাত ব্যক্তিদের উক্তি নিয়ে অনুপ্রেরণা মূলক ভিডিও তৈরি করতে পারেন। বর্তমান সময়ে এই ধরনের ভিডিও মানুষ অনেক পছন্দ করে।

আরও পড়ুনঃ সবচেয়ে সহজ জনপ্রিয় ১০ টি ফ্রিল্যান্সিং কাজ

১৮। প্রকৃতি সম্পর্কে ইউটিউব চ্যানেল

আপনি প্রকৃতি সম্পর্কে ভিডিও বানাতে পারেন। কারণ প্রকৃতিতে আমাদের এমন অনেক জিনিস রয়েছে যা সম্পর্কে আমাদের অনেকেই জানি না তাই ভিডিওর ভিতরে প্রকৃতি সম্পর্কে তথ্য দিতে পারলে সেটা আমাদের জ্ঞান বৃদ্ধির সাথে সাথে আমরা আরও অনেক কিছু সম্পর্কে জানতে পারব। তাই আপনি প্রকৃতি সম্পর্কে ভিডিও তৈরি করতে পারেন। তবে এর জন্য আপনার একটি ভাল ক্যামেরা থাকা উচিত এবং আপনি ভিডিওটি খুব ভালভাবে তৈরি করুন যাতে লোকেরা সেগুলি সম্পর্কে ভালোভাবে জানতে পারে। 

যদি আপনার কাছে সম্পূর্ণ তথ্য থাকে তারপর ভিডিও তৈরি করুন। কারণ আপনি সেই জিনিস সম্পর্কে সম্পূর্ণ তথ্য দেবেন, তাহলে অন্য লোকেরা সুবিধা নিতে সক্ষম হবে। এতে যখন সেই লোকেরা উপকৃত হবে, তারা আপনার ভিডিও বারবার দেখবে এবং আপনার ভিডিওর ভিউও ভাল হবে এবং আপনার চ্যানেলও অনেক উপকৃত হবে। আপনাকে অবশ্যই এই বিষয়গুলি নিয়ে ভিডিও বানাতে হবে। আপনারা প্রকৃতির মধ্যে এমন অনেক কিছু দেখতে পারবেন, যা নিয়ে আপনারা ভিডিও তৈরি করতে পারবেন।

১৯। স্বাস্থ্য বিষয়ক চ্যানেল

ইউটিউব চ্যানেলে আপনারা স্বাস্থ্য সম্পর্কিত ভিডিও কন্টেন্ট তৈরি করে আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করতে পারবেন। স্বাস্থ্য বিষয়ক ইউটিউব চ্যানেলে আপনারা যে ধরনের ভিডিও তৈরি পারবেন সেটা হলো – কি কি খাবার খেলে আপনার শরীর সুস্থ স্বাভাবিক থাকবে, কিভাবে স্বাস্থ্য ভালো রাখা যায়, ‌কোন খাবারে কতটুকু পুষ্টি রয়েছে, কি করলে কিংবা খেলে শরীরের মেদ জমবে না, কি খেলে মোটা হওয়া যায়, কিভাবে ভালো থাকা যায় ইত্যাদি। 

এই সকল বিষয়কে কেন্দ্র করেই আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন। বর্তমানে মানুষ খুব বেশি স্বাস্থ্য সচেতন। যার কারণে তারা ইউটিউবে এই ধরনের ভিডিওর খোঁজ করে থাকেন। তাই যদি আপনি স্বাস্থ্য সচেতনতামূলক ভিডিও কন্টেন্ট তৈরি করে চ্যানেলে আপলোড করতে পারেন তবেই আপনি লাভবান হতে পারবেন।

শেষ কথা

তাই আজ এই পোস্টে আমরা আপনাকে টাকা আয় করার জন্য ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে, ইউটিউব চ্যানেলের ধারনা, ইউটিউব চ্যানেলের নামের জন্য ধারনা, একজন ব্যক্তির জন্য ইউটিউব ভিডিও আইডিয়া, নতুনদের জন্য ইউটিউব চ্যানেল আইডিয়া 20টি ইউটিউব চ্যানেল বাড়াতে দুর্দান্ত টিপস বলেছি। এই টিপস সম্পর্কে এবং এই পোস্টটি আপনার কেমন লেগেছে, অবশ্যই নীচে কমেন্ট করে আমাদের জানান এবং এ সম্পর্কে আপনার যদি কোন প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকে, তাহলে আপনি নীচের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে জিজ্ঞাসা করতে পারেন এবং যদি এই তথ্যটি আপনার ভালো লাগে তাহলে শেয়ার করুন।

আরও পড়ুনঃ মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করার উপায়

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?