Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2022/10/biman.html

অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম - প্রিয় পাঠক আজকের এই পোস্টে আমরা অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করব। যারা অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে জানতে চান তারা এই পোস্টটি সম্পূর্ণ মনোযোগ সহকারে পড়ুন। আশা করি আপনি অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

সূচিপত্রঃ অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

আপনি যদি অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে জানতে চান তাহলে সম্পূর্ণ পোস্ট জুড়ে আমাদের সঙ্গে থাকুন। তাহলে চলুন অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা শুরু করা যাক।

ভূমিকাঃ অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

প্রিয় পাঠক আমরা অনেকেই অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে জানিনা। অনেক সময় আমাদের অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের প্রয়োজন হয় যেমন রাজশাহী থেকে ঢাকা ঢাকা থেকে কক্সবাজার এরকম বাংলাদেশের মধ্যে অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের প্রয়োজন হয়। এভাবে অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম না জানার কারণে আমরা বিভিন্ন রকম সমস্যায় পড়ে থাকি।

আরো পড়ুনঃ অনলাইনে বিমানের টিকেট কাটার নিয়ম

তাই আজকের এই আর্টিকেলে আমরা অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করব। আশা করি আপনি আমাদের এই পোস্ট সম্পূর্ণ মনোযোগ সহকারে পড়লে অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম

বিমান অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণ করার জন্য আপনাকে প্রথমে অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটতে হবে। কয়েকটি অভ্যন্তরীণ প্লেন বাংলাদেশের মধ্যে চলাচল করে তার মধ্যে ইউএস-বাংলা অন্যতম একটি। বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ প্লেনের মধ্যে ইউএস-বাংলা অন্যতম তাই এখন আমরা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের টিকিট কিভাবে কাটবে সম্পর্কে আপনাদের জানাবো।

ধাপ ১ - অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম 

ইউএস-বাংলা একটি বেসরকারি এয়ারলাইনস সংস্থা। এখানে টিকিট কাটার কিছু নিয়মকানুন রয়েছে এর জন্য আপনাকে প্রথমে এদের ওয়েবসাইটে যেতে হবে। সেখানে যাওয়ার পর ওয়ান ওয়ে ও multi-city এর যেকোন একটিতে ক্লিক করতে হবে।

ধাপ ২ - অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম 

মাল্টি সিটিতে ক্লিক করার পরে নতুন একটি উইন্ডো খুলবে সেখানে আপনাকে ডিপারচার সিটিতে আপনি যে শহরে যাত্রা করবেন অর্থাৎ যাত্রার শহরের স্থানে ক্লিক করতে হবে। এরপর আপনাকে যাত্রা করার তারিখ এবং ফেরার তারিখ উল্লেখ করতে হবে আপনারা কয়জন যাত্রা করবেন এর পাশাপাশি বাচ্চা কয়টা আছে সে সম্পর্কে তথ্য দিতে হবে।

ধাপ ৩ - অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম 

এরপর নতুন পেজে আপনার তারিখ অনুযায়ী বিজনেস ক্লাসের পাশাপাশি লিমিটেড অফার ও রেগুলার অপশনে দেখবেন। আপনার প্রয়োজন মত এগুলোর যেকোন একটাতে ক্লিক করতে হবে। আপনি যদি ফেরার টিকিট নিতে চান তাহলে একই ভাবে এই সব অপশন এর যেকোনো একটি নির্বাচন করতে হবে।

ধাপ ৪ - অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম 

এর পরের পেজে টাইটেল উল্লেখ করা যেকোনো একটিতে ক্লিক করতে হবে এরপর জাতির নামের প্রথম ও শেষ অংশ জন্মতারিখ মোবাইল নাম্বার গন্তব্যর যোগাযোগের মোবাইল নম্বর ই-মেইল ঠিকানা দিতে হবে। এবার ডান পাশে টিকিটের দাম এর নিচে বুক লেখায় ক্লিক করতে হবে।

আরো পড়ুনঃ অনলাইনে ইনকাম করার উপায় ২০২২

ধাপ ৫ - অভ্যন্তরীণ রুটে টিকিট কাটার নিয়ম 

এরপর টিকিট কেনার প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে আপনাকে নিচের পে অনলাইন এটি বেছে নিতে হবে। এতে ক্লিক করলে নতুন পেজ আসবে এরপর কার্ড নাম্বার মেয়াদের তারিখ ব্যবহারকারীর নাম সহ সকল তথ্য দিয়ে পে নাউ লেখার উপর ক্লিক করতে হবে।

অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

এখন আমরা আমাদের এই আর্টিকেলের মূল আলোচনার বিষয় অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করব। আপনি যদি অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে না জেনে থাকেন তাহলে আজকের এই আর্টিকেলটি সম্পূর্ণ মনোযোগ সহকারে পড়ুন। তাহলে অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

ধাপ ১ - অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

এর জন্য আপনাকে প্রথমে আপনি যেই গন্তব্য স্থানে পৌঁছাতে চান উপরের নিয়ম অনুযায়ী টিকিট কাটতে হবে। এরপরে সময়মতো নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বিমানবন্দরের সংশ্লিষ্ট এয়ারলাইন্সের কাউন্টারে রিপোর্ট করতে হবে।

ধাপ ২ - অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

সেজন্য আপনাকে হাতে যথেষ্ট সময় নিয়ে বিমানবন্দরের উদ্দেশ্যে রওনা করতে হবে। যদি আপনি ঢাকা শহরে থাকেন তাহলে আপনাকে সময়ের অনেক আগেই বের হতে হবে কারণ ঢাকা শহরে প্রচুর পরিমাণে জ্যাম।

ধাপ ৩ - অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

সাধারণত আন্তর্জাতিক রুটে বিমান ছাড়ার দুই ঘণ্টা আগেই উপস্থিত হতে হয় এবং অভ্যন্তরীণ রুটে বিমান ছাড়ার একঘন্টা আগে রিপোর্ট করতে বলা হয়।

ধাপ ৪ - অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

অনেক ক্ষেত্রে সিট নাম্বার আগে নির্দিষ্ট করা থাকে না যাত্রার দিন এয়ারলাইন্সের কাউন্টারে রিপোর্ট করার পরে বোর্ডিং কার্ড দেওয়া হয় তাতে সিট নাম্বার থাকে। যদি দেরি করে যান তাহলে আপনার পছন্দমত সিট নাও পেতে পারেন।

ধাপ ৫ - অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

আসার সময় অবশ্যই টিকেট সংগ্রহ করতে ভুলবেন না এটি অত্যন্ত জরুরী এবং আপনি যদি আন্তর্জাতিক বিমান ভ্রমণে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে আপনার সাথে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র এবং পাসপোর্ট মনে করে নিয়ে নিতে হবে।

বিমান ভ্রমণের সময় যেসব বিষয়ে সতর্ক থাকবেন

আপনি যদি প্রথম বার বিমান ভ্রমণ করে থাকেন তাহলে আপনাকে অবশ্যই কিছু বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে এটি অত্যন্ত জরুরী। তাই আজকের এই পোস্টটি আমরা অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম এর সাথে বিমান ভ্রমণের সময় যেসব বিষয়ে সতর্ক থাকবেন সে সকল বিষয়ে জানাবো। তো চলুন বিমান ভ্রমণের সময় যেসব বিষয়ে সতর্ক থাকবেন তা জেনে নিন।

আরো পড়ুনঃ অনলাইনে বাসের টিকিট কাটার নিয়ম

১। লাগেজ নিবেন কিন্তু বেশি ভারী করবেন না। বিমানের একটি লিমিটেড ওজন দেওয়া থাকে। যার থেকে বেশি ওজন বিমানে নেওয়া যায় না তাই এ বিষয়ে সতর্ক থাকবেন। এবং বেশি ওজন যাওয়ার কারণে আপনার বিভিন্ন রকম সমস্যায় কারণ হতে পারে এটি।

২। বিমানবন্দর অনেক রকম চেকিং এর মুখোমুখি হতে হয় তাই সবগুলো নিয়মকানুন মেনে চলুন। চেক করার সময় আসবাবপত্র বের করে নিন। বোর্ডিং কার্ড নাম্বার উল্লেখ থাকবে সেটি তে বসতে হবে। আপনি যে লাগেজ নিয়ে যাবেন সেখানে অসিত নাম্বার উল্লেখ থাকবে।

৩। আপনি চাইলে লাগের ছাড়াও দুই-তিনটি হ্যান্ড ব্যাগ সঙ্গে রাখতে পারবেন। এগুলো প্লেনে আপনার মাথার উপরে রাখতে পারেন। আপনি বিদেশ থেকে আসার সময় একটি শ্যাম্পু বডি স্প্রে পারফিউম ইলেকট্রনিক ডিভাইস আনতে চাইলে অন্য কোন ব্যাগে রাখতে হবে।

৪। বিমান কর্মীদের সঙ্গে ভালো আচরণ করুন তাদের প্রতি আন্তরিক হবেন এবং অভিযোগ থাকলে যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে জানাবেন। এবং তাদের সাথে সবসময় ভালো ব্যবহার করবেন ভাল করে কথা বলবেন। বিমান চলাচলের সময় আপনাকে অবশ্যই সতর্ক থাকতে হবে

শেষ কথাঃ অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম

প্রিয় পাঠক আজকের এই পোস্টে আপনারা অভ্যন্তরীণ বিমান ভ্রমণের নিয়ম এবং অভ্যন্তরীণ বিমান রুট এর টিকিট কাটার নিয়ম সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। আশা করি আপনি যদি সম্পূর্ণ পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়ে থাকেন তাহলে উক্ত বিষয়গুলো সম্পর্কে আর কোন সমস্যা থাকবে না। এবং আপনি অবশ্যই বিষয়গুলো সম্পর্কে মেনে চলবেন এতক্ষন আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ।
0 Comments