Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2021/07/how-to-earn-from-likee-app.html

লাইকি থেকে টাকা ইনকাম | Likee থেকে ইনকাম

লাইকি থেকে টাকা ইনকাম — বর্তমান সময়ে পৃথিবীর সবথেকে জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া গুলো হচ্ছে ফেসবুক ও ভিডিও আপলোডিং অ্যাপ যেমন- লাইকি এবং টিকটক। টিকটকের পাশাপাশি বর্তমানে লাইকিও সমানভাবে জনপ্রিয়তা অর্জন করছে। বর্তমানে ভিডিও আপলোডিং অ্যাপ লাইকি থেকে টাকা আয় করা সম্ভব।

লাইকি থেকে টাকা ইনকাম

লাইকি অ্যাপ ব্যবহার করে কিভাবে টাকা ইনকাম করা সম্ভব তা হয়তোবা আমাদের অনেকেই আছেন জানেন না। বর্তমান সময়ে লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করার অনেক সহজ পদ্ধতি আছে। এই অ্যাপের মাধ্যমে ছোটো ছোটো ভিডিও কন্টেন্ট আপলোড করে টাকা ইনকাম করা সম্ভব। টিকটকের মতো লাইকিতে টাকা ইনকাম করার বিভিন্ন পদ্ধতি আছে।

ভিডিও আপলোডিং অ্যাপ লাইকি হচ্ছে এমন একটি অ্যাপ্লিকেশান যেখানে আপনি ভিডিও আপলোড করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন এবং এর পাশাপাশি জনপ্রিয়তাও অর্জন করতে পারবেন। লাইকি অ্যাপে অনেক ধরনের ফিচারস আছে যা ব্যবহার করে খুবি সহজে আপনি খুব কম কিছু সেকেন্ডের মধ্যে একটি ভিডিও কন্টেন্ট তৈরি করে ফেলতে পারবেন। আপনি কি লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করতে ইচ্ছুক? তবে চলুন জেনে নেই, কিভাবে লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করবেন। 

Hashtag হ্যাসট্যাগ দিয়ে করে ভিডিও শেয়ার করুন

যদি আপনি Likee ব্যবহার করেন তবে আপনি হ্যাশট্যাগ বাটনটা অনেকবার দেখতে পারবেন। এখন প্রশ্ন হচ্ছে হ্যাশট্যাগ মূলত কি? উত্তর, হ্যাশট্যাগের কাজ হচ্ছে আপনার ভিডিওটা কোনো ধরনের এবং আপনি ভিডিওতে কি প্রকাশ করতে চেয়েছেন, তা ভিউয়ার্সদের কাছে তুলে ধরা। 

অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান আছে যারা বর্তমানে হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করে, তাদের নতুন প্রোডাক্টকে প্রমোশন করার জন্য। তারা বিভিন্ন ধরনের অ্যাওয়ার্ড রাখে এই হ্যাশট্যাগের উপরে। লাইকি থেকে বোনাস হিসেবে টাকা দেয়া হয় ইউজারদের, যারা তাদের হ্যাশট্যাগ ভিডিওতে সবথেকে বেশি ভিউ পায়।

জনপ্রিয় ভিডিও আপলোডিং অ্যাপ লাইকি কোম্পানি থেকে আপনাকে ৫০০ ডলার থেকে ১০০০ ডলার পর্যন্ত পেমেন্ট করতে পারে। এই ডলার আপনি খুবই সহজে আপনার লাইকি ওয়ালেট এর মাধ্যমে তুলতে পারবেন। কিন্তু, হ্যাঁ লাইকি অ্যাপের নিয়ম অনুযায়ী আপনি সর্বনিম্ন ২০ ডলার তুলতে পারবেন। যদি আপনি প্রতি মাসে তিন থেকে চারটি হ্যাশট্যাগ কম্পিটিশান যুক্ত হোন এবং সর্বোচ্চ ভিউ সংগ্রহ করেন তবে আপনি লাইকি থেকে অনেক বেশি টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ কম খরচে কথা বলার এপস

Live ভিডিও করুন | Likee থেকে ইনকাম

লাইকি অ্যাপের মধ্যে লাইভ ভিডিও করার ফিচারস আছে, যা থেকে আপনি সহজেই টাকা ইনকাম করতে পারবেন। কিন্তু হ্যাঁ, আপনি শুরুতেই এই লাইভ ভিডিও করবার পারবেন না। কেননা, আপনি লাইকিতে লাইভ ভিডিও করার জন্য পারমিশন তখনি পাবেন, যখন আপনার লেভেল ৩৫ পর্যন্ত কমপ্লিট করতে পারবেন।

আপনি লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য প্রতিদিন লাইকিতে লাইভে আসতে হবে আর আপনার দর্শক যেটা চায় সেটাই আপনাকে করতে হবে। যদি তারা আপনার কাজটিকে পছন্দ করে তবে, তারা আপনাকে একটি উপহার দিবে। আপনি এই উপহারকে টাকায় কনভার্ট করতে পারবেন। লাইকি আপনাকে প্রত্যেকটি উপহারের জন্যে ১ ডলার থেকে ২১০ ডলার পর্যন্ত প্রদান করতে পারে। আপনি যত বেশি পরিমাণে লাইকিতে লাইভ ভিডিও তৈরি করবেন আপনার ইনকাম তত বেশি হবে।

স্পন্সর ভিডিও করুন | কোন অ্যাপ দিয়ে টাকা ইনকাম করা যায়

বর্তমান সময়ে প্রায় সকল সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্মে স্পন্সরশীপ এর ব্যবহার করে। বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান নিজেদের প্রোডাক্ট অথবা কোম্পানিকে প্রচার করার জন্য লাইকি ও টিকটকের মতো প্লাটফর্মগুলোকে ব্যবহার করে। এসকল কোম্পানি টপ ব্যবহারকারীদে খুঁজেন যারা খুব ভালোমানের কনটেন্ট তৈরি করে আর এই সকল ভিডিও আপলোডিং অ্যাপে যাদের জনপ্রিয়তা অনেক বেশি।

যদি আপনি একজন ভালো কন্টেন্ট ক্রিয়েট করতে পারেন এবং আপনার কয়েক হাজার ফলোয়ার থেকে থাকে তবে, আপনি স্পন্সরশিপ পাবেন। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের প্রোডাক্ট বা কোম্পানির অ্যাডভার্টাইজমেন্টের কাজটি আপনাকে দেবে। তারা আপনার ভিডিওতে স্পন্সর করবে এবং তার বিনিময়ে আপনি তাদের প্রোডাক্ট প্রমোশন করবে। এই ক্ষেত্রে আপনি ১০০ ডলার থেকে ১০০০ ডলার পর্যন্ত ইনকাম করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ ফেসবুক থেকে আয় করার উপায়

Crown মুকুট ব্যবহার করে লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করুন

লাইকি অ্যাপের মাঝে যাদের ফলোয়াস সংখ্যা বেশি থাকে তাদের মুকুট প্রদান করা হয়ে থাকে। লাইকিতে তিন ধরনের মুকুট প্রদান করা হয়। তিনটি মুকুট হচ্ছেঃ

  1. K1 Crown Likee app — যদি আপনি K1 Crown অর্জন করেন তবে আপনাকে মাসিক লাইকি কোম্পানি থেকে প্রায় ৪০০ ডলার পর্যন্ত প্রদান করা হবে। 
  2. K2 Crown Likee app — যদি আপনি K2 Crown অর্জন করেন তবে আপনাকে প্রতি মাসে লাইকি কোম্পানি থেকে প্রায় ২০০ ডলার পর্যন্ত প্রদান করা হবে। 
  3. K3 Crown Likee app — যদি আপনি K3 Crown অর্জন করেন তবে আপনাকে প্রতি মাসে লাইকি কোম্পানি থেকে প্রায় ৫০ ডলার পর্যন্ত প্রদান করা হবে। 

সুতরাং, Crown মুকুট অর্জন করে আপনি লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন সহজেই। আপনি যতাে বেশি ফলোয়ার্স কালেক্ট করতে পারবেন আপনি ততো তাড়াতাড়ি Crown মুকুট অর্জন করতে পারবেন। Crown মুলুট অর্জন করে বেশ ভালো অঙ্কের টাকা আপনি মাসিক ইনকাম করতে পারবেন।

লাইকি কম্পিটিশনে অংশ গ্রহণ করে টাকা আয় করুন

লাইকি অ্যাপে প্রতিনিয়ত কোনো না কোনো কম্পিটিশন হয়ে থাকে। আর এই কম্পিটিশন যুক্ত হয়ে আপনি লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন সহজে। লাইকি প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করার জন্যে আপনাকে যা যা করতে হবে। 

প্রথমে আপনাকে লাইকি অ্যাপের মেইন ড্যাশবোর্ডে যাইতে হবে। সেখান থেকে আপনি মেসেজস এখানে ক্লিক করবেন এবং তারপরে কনটেস্টের উপরে ক্লিক করবেন। সর্বশেষ কনটেস্টে আপনি অংশগ্রহণ করতে পারবেন। আপনার পছন্দ অনুযায়ী যেকোন কম্পিটিশনে যুক্ত হতে পারবেন।

মনে রাখা ভালো, লাইকি কম্পিটিশনে অংশ গ্রহণ করার পরে কম্পিটিশনের নিয়ম মেনে ভিডিও তৈরি করে সাবমিট করতে হবে। আপনার ভিডিও বানানো হয়ে গেলে আপনি সঠিক হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করবেন আর আপনার কভার টাইটেল সহকারে সাবমিট করবেন। কম্পিটিশনে অংশগ্রহণ করার মাধ্যমে আপনি ১০০ ডলার পর্যন্ত আয় করতে পারবেন।

লাইকি অ্যাকাউন্টে বিক্রি করে আয়

টিকটকের মতো করে লাইকি একাউন্ট বিক্রি করে টাকা ইনকাম করা সম্ভব। অনেকেই বেশি ফলোয়ার্স এবং অ্যাক্টিভ লাইকি অ্যাকাউন্ট ক্রয় করতে চায়। আপনি তাদের কাছে লাইকি একাউন্টটি বিক্রি করতে পারেন। ফেসবুক সহ অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়ে অনেক গ্রুপ রয়েছে লাইকি একাউন্ট কেনা-বেচার।

লাইকি একাউন্ট বিক্রি করার ২টি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট হচ্ছেঃ

  1. Playerup.com
  2. Fameswap.com

শেষ কথা

কিছু পদ্ধতি ব্যবহার করেই আপনি খুবই সহজে লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আমার কাছে মনে হয়, লাইকি থেকে টাকা ইনকাম করাটা অনেক বেশি সহজ। কেননা, ছোটো ছোটো ভিডিও আপলোড করে আপনি সহজে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ মোবাইল দিয়ে অনলাইনে আয় করার সহজ উপায়

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

সর্বশেষ আপডেটেড অফার পেতে চান?

নটিফিকেশন ও নোটিশ এরিয়া