বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম ২০২৪ - বোর্ড চ্যালেঞ্জ কিভাবে করবেন জেনে নিন

বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম: সুপ্রিয় শিক্ষার্থী বন্ধুরা, আপনারা যারা সম্প্রতি পরীক্ষার রেজাল্ট হাতে পেয়েছেন এবং আপনি অথবা আপনার নিকটস্থ কেউ আসনের রূপ ফলাফল করতে পারেননি তাদের জন্য আমাদের আজকের এই পোস্ট।

অনেকেই সারা বছর মনোযোগ দিয়ে পড়ার পরবর্তীতেও খুবই খারাপ রেজাল্ট করেন। আবার অনেকেই রয়েছেন যারা খুব ভালো লেখার পরবর্তীতেও আশানুরূপ ফলাফল পান না।

তবে যাদের আত্মবিশ্বাস রয়েছে তারা সচরাচর বোর্ড চ্যালেঞ্জ করে থাকন। কেননা বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার মাধ্যমে ওই শিক্ষার্থী তার প্রাপ্ত সঠিক নম্বর লাভ করতে পারে।

সম্প্রতি এইচএসসি রেজাল্ট প্রকাশ পেয়েছে। আর এমন অনেকেই রয়েছেন যারা বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে ইচ্ছুক। তো আপনি যদি তাদের মধ্যে একজন হয়ে থাকেন তাহলে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম ২০২৪ সম্পর্কে নতুন আপডেট জানুন আমাদের আজকের পোস্টের মাধ্যমে।

(toc) #title=(সূচিপত্র)

বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম | এইচএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ এর নিয়ম

বোর্ড চ্যালেঞ্জ সাধারণত এসএমএসের মাধ্যমে করা হয়। আপনি যদি পুনঃনিরীক্ষণ করতে চান তাহলে নিচের নিয়মাবলী অনুসরণ করে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করুন। আশা করা যায় আপনার কাঙ্খিত ফলাফল পেতে সক্ষম হবেন বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার মাধ্যমে।

টেলিটক প্রিপেইড মোবাইল ফোন থেকে মূলত শিক্ষার্থীদেরকে পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে হবে। এর জন্য নিচের ধারাবাহিকতা গুলো বজায় রাখুন এবং ধাপগুলো সম্পূর্ণ করুন।

প্রথমত: মেসেজ অপশনে প্রবেশ করুন

দ্বিতীয়ত:  RSC<Space> লিখুন

তৃতীয়ত: বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর উল্লেখ করুন। অর্থাৎ আপনি কোন বোর্ডের শিক্ষার্থী! যদি ঢাকার হয়ে থাকেন তাহলে দেখুন DHA.

চতুর্থত: <Space>এবং রোল নম্বর বসান

অতঃপর আবারও <Space> বিষয় কোড লিখে Send করুন 16222 নাম্বারে।

এইচএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম ভিডিওতে দেখুন

মূলত এই একই প্রসেসে আপনি এসএসসি, এইচএসসি এবং জেএসসি সহ সকল পরীক্ষার রেজাল্ট পাওয়ার পরবর্তীতে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন। তবে জেনে রাখা জরুরী সকল বোর্ডের শর্ট কোড। তাই এ পর্যায়ে আমরা প্রত্যেকটি বোর্ডের সংক্ষিপ্ত নাম বা শর্ট কোড গুলো সংযুক্ত করছি। যথা:

  • কুমিল্লা → COM
  • চট্টগ্রাম → CHI
  • বরিশাল → BAR
  • রাজশাহী → RAJ
  • যশোর → JES
  • মাদ্রাসা → MAD
  • ঢাকা  → DHA
  • দিনাজপুর  → DIJ
  • ময়মনসিংহ → MYM
  • সিলেট → SYL
  • কারিগরি → TEC

বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার সময়

বোর্ড চ্যালেঞ্জ সাধারণত রেজাল্ট প্রকাশ পাওয়ার পরের দিনই করা যায়। তবে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নির্দিষ্ট কিছু সময় সীমা রয়েছে। যেমন সম্প্রতি এইচএসসি পরীক্ষার রেজাল্ট প্রকাশ পেয়েছে আর তাই এইচএসসি পরীক্ষা ২০২৪ এ অংশগ্রহণকৃত শিক্ষার্থীরা পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারবেন আজ থেকে অর্থাৎ নভেম্বরের ২৭ তারিখ থেকে শুরু করে ডিসেম্বরের ৩ তারিখ পর্যন্ত।

এক কথায় রেজাল্ট হাতে পাওয়ার পর মোটামুটি এক সপ্তাহ সময়ের মধ্যে শিক্ষার্থীরা পুনঃনিরীক্ষণের সুযোগ পেয়ে থাকে। অতএব এইচএসসি ২০২৪ শিক্ষার্থীদের জন্য বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার সঠিক সময় এখন। 

পিএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম

আপনি যদি পিএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে চান তাহলে নিম্ন বর্ণিত প্রসেসটা ফলো করে উল্লেখিত নাম্বারে এসএমএস পাঠান। ব্যাস এটুকুই। 

DPRSC <Space> Student ID <space> Subject code

তারপর SMS টি পাঠিয়ে দিন 16222 নম্বরে।

এসএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম

ঠিক একইভাবে এসএসসি বোর্ড চ্যালঞ্জ করার নিয়ম হলো- RSC<space>1st three letter of board<space>Rool number<space>Subject code লিখে ১৬২২২ নম্বরে এসএমএস পাঠিয়ে দেওয়া।

তবে হ্যাঁ, মনে রাখবেন এসএমএস পাঠানোর পরবর্তীতে ফিরতে এসএমএস এ আবেদন বাবদ কিছু টাকা কেটে নেওয়া হয়। আর তাই পরবর্তীতে একটি পিন নাম্বার প্রদান করতে হবে আপনাকে। আর আপনি যদি তাদের সম্মত হন তাহলে মেসেজ অপশনে গিয়ে আবারো এসএমএস পাঠাতে হবে নিম্ন বর্ণিত স্টেপগুলো ফলো করে। 

RSC <Space> Yes <Space> PIN <Space> Contact Number (যে কোন মোবাইল অপারেটর) লিখে Send করতে হবে 16222 নম্বরে।

অনার্স বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম

অনেকেই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষার ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের নিয়ম জানতে চান। মূলত অনার্স লেভেলে গিয়ে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম কিছুটা ভিন্ন থাকে সেই সাথে আবেদন ফ্রি ডিগ্রি পরীক্ষার্থীদের জন্য ৫০০ টাকা ধার্য করা হয়। অন্যদিকে অনার্স পড়ুয়ায় শিক্ষার্থীদের জন্য ৮০০ টাকা এবং মাস্টার্স পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের জন্য ফ্রি প্রতিপত্রের জন্য ৫০০ টাকা ধরা হয়।

অতএব আপনাকে এত পরিমাণ ফি প্রদান করার পর বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে হবে। আপনি যদি ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণ করতে আবেদন করতে চান তাহলে:

প্রথমত: ক্লিক করুন http://103.113.200.36/PAMS/ICTUnit/Re_scrutiny.aspx  এই লিংকে।

দ্বিতীয়ত: স্টুডেন্ট ফি অপশন সিলেক্ট করুন

তৃতীয়ত: আপনার re security fee সিলেক্ট করুন

চতুর্থত: এরপর আপনি যে পরীক্ষার ফলাফল পুনঃনিরীক্ষন করবেন সেটা সিলেক্ট করুন অতঃপর আপনার রেজিষ্ট্রেশন কার্ড বক্সে প্রবেশ করান।

পঞ্চমত: সার্চ অপশনে ক্লিক করলে বোর্ড চ্যালেঞ্জ এর বিস্তারিত আপডেট দেখুন।

ষষ্ঠমত: আপনার মোবাইল নাম্বার প্রবেশ কোরআন এবং আপনি যে বিষয়ে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করবেন তার পেপার কোড সিলেক্ট করুন।

সপ্তমত: submit অপশনে ক্লিক করুন। অতঃপর আবেদন পত্রটি চেঞ্জ করে বের করে নিন। সর্বশেষ এ প্রিন্ট কপি নিয়ে নিকটস্থ সােনালী ব্যাংকের যে কোন শাখায় জমা দিয়ে রশিদ সংগ্রহ করুন। 

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম

অনার্স বোর্ড চ্যালেঞ্জ এর নিয়ম আমরা যে ধারাবাহিকতা বজায় রেখে উল্লেখ করেছি ঠিক একই নিয়ম অনুসরণ করে আপনি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন। এটা মূলত একই প্রসেস। আমরা সচরাচর আলাদা আলাদা কোয়েরি লিখে সার্চ করে থাকে গুগলে। আর তাই আলোচনার এ পর্যায়ে এই টপিকটি নিয়ে কথা বলা। 

বোর্ড চ্যালেঞ্জ খরচ

ইতোমধ্যে আমরা অনাস লেভেলে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে মোটামুটি কত টাকা ফ্রি প্রদান করতে হয় তা উল্লেখ করেছি।  তবে আপনি যদি এসএসসি এইচএসসি জেএসসি এবং পিএসসি লেভেলে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করেন তাহলে প্রতিপত্রের জন্য 150 টাকা ফি প্রদান করতে হবে। বলতে পারেন বোর্ড চ্যালেঞ্জ খরচ মোটামুটি মানের।

বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে কি কি লাগে

বোর্ড চ্যালেঞ্জ করার নিয়ম কি এটা আমরা ইতোমধ্যে জানানোর চেষ্টা করেছি খুবই স্পষ্টভাবে। আর এটার পর নিশ্চয়ই বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে কি কি লাগে এ প্রশ্নের উত্তরটি আপনার কাছে সুস্পষ্ট। তবুও আবারো বলছি বোর্ড চ্যালেঞ্জ করতে সাধারণত নিম্ন বর্ণিত জিনিসগুলো লাগে

  • একটি মোবাইল ফোন
  • একটি টেলিটক সিম
  • একই সচল মোবাইল নম্বর এবং
  • আবেদন ফ্রি বাবদ টাকা + রোল ও রেজিস্ট্রেশন নাম্বার।

বোর্ড চ্যালেঞ্জ এর রেজাল্ট কবে দিবে ২০২৪

বোর্ড চ্যালেঞ্জ এর রেজাল্ট কবে দিবে ২০২৪, এটা মূলত এইচএসসি শিক্ষার্থীরা জানতে চাচ্ছেন। আপনি যদি এদের মধ্যে বোর্ড চ্যালেঞ্জ করে থাকেন সঠিক নিয়মে তাহলে এইচএসসি বোর্ড চ্যালেঞ্জ ফলাফল ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহের দিকে প্রকাশ পাবে বলে আশা করা যায়। তবে আপনি যদি পরবর্তী আপডেট পেতে চান তাহলে আমাদের সাথে থাকুন। ধন্যবাদ।

পোষ্ট ক্যাটাগরি:

এখানে আপনার মতামত দিন

0মন্তব্যসমূহ

আপনার মন্তব্য লিখুন (0)