চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে? প্রশ্নটির উত্তর জানার জন্য অবশ্যই, আপনি আমাদের ওয়েবসাইটের এই লেখাটি শেষ পর্যন্ত দেখুন। আশা করি আপনার প্রশ্নের সঠিক উত্তর পেয়ে যাবেন।

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে

দামের পরিবর্তনের কারণে যে হারে চাহিদার পরিবর্তন ঘটে, তাকে চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বলে।

আমরা সকলেই জানি যে, দ্রব্যমূল্যের দামের পরিবর্তন হলে উক্ত দ্রব্যমূল্যের চাহিদার পরিবর্তন হয়ে থাকে। কোন দ্রব্যের দামের পরিবর্তনের কারণে ঐ দ্রব্যের চাহিদার পরিমাণ যে মাত্রায় পরিবর্তন হয়ে থাকে, তাই মূলত চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা। অর্থাৎ দামের পরিবর্তনের কারণে যে হারে চাহিদার পরিবর্তন ঘটে, তাকেই মূলত চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বলা হয়। 

অন্যভাবে বলা যায়ঃ চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বলতে দ্রব্যমূল্যের হ্রাস অথবা বৃদ্ধির সাথে সাথে ভোক্তাদের চাহিদার পরিমাণের হ্রাস এবং বৃদ্ধির সম্পর্ককে চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বুঝায়।

কোনো দ্রব্যের মূল্য হ্রাস পেলে তার চাহিদা বৃদ্ধি পায় এবং মূল্য বৃদ্ধি পেলে চাহিদা হ্রাস পায়। মূল্য বৃদ্ধি এবং হ্রাস এর সঙ্গে চাহিদার বৃদ্ধি কিংবা হ্রাসের পরিমাণ সকল ক্ষেত্রে সমান হয়না।

কোনো কোনো দ্রব্যের ক্ষেত্রে চাহিদার পরিবর্তন বেশি দেখা যায়, আবার কোনো কোনো দ্রব্যের ক্ষেত্রে চাহিদার পরিবর্তন কম হয়। দ্রব্যেরমূল্য পরিবর্তনের কারণে ভোক্তাদের মাঝে যে হারে চাহিদার পরিবর্তন হয়ে তাকে চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা (Elasticity of Demand) বলা হয়।

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বিষয়ে অধ্যাপক লিপসি এর ভাষায় বলা যায়, “কোনো দ্রব্যের মূল্য পরিবর্তনের কারণে চাহিদা যে পরিমাণে সাড়া দেয় তাকেই চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বলে।” (Lipsey– “Elasticity of demand is the measure of the responsiveness of the quantity demanded to changes in price”)

আরো পড়ুনঃ rfl web do কাজ করার নিয়ম আরএফএল ওয়েব ডিও

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে?

অধ্যাপক মার্শাল এর ভাষায়, ‘দাম পরিবর্তনের কারণে চাহিদা যে দ্রুত বা ধীরগতিতে পরিবর্তিত হয় তাই মূলত চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা’। নিচে উল্লেখ করা সূত্রের সাহায্যে আপনি চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা বের করতে পারবেন।

চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা =   চাহিদার শতকরা পরিবর্তনের হার / দামের শতকরা পরিবর্তনের হার

বা, চাহিদার পরিবর্তনের পরিমাণ / প্রাথমিক চাহিদার পরিমাণ ¸ দামের পরিবর্তনের পরিমাণ /  প্রাথমিক দামের পরিমাণ

বা, চাহিদার পরিবর্তনের পরিমাণ / প্রাথমিক চাহিদার পরিমাণ Ù প্রাথমিক দামের পরিমাণ / দামের পরিবর্তনের পরিমাণ

প্রতীক চিহ্নের সাহায্যেও চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা প্রকাশ করা যায়ঃ

Ed = DQ/Q¸ DP/P

= DQ/Q Ù P/DP

=DQ/DP Ù Q /P

এখানে, Ed = চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা

DQ = চাহিদার পরিবর্তনের হার

Q = প্রাথমিক চাহিদার পরিমাণ

DP = দামের পরিবর্তনের পরিমাণ

P = প্রাথমিক দামের পরিমাণ

শেষ কথাঃ চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে নিয়ে

প্রিয় পাঠক, আমি আশা করি আপনি আমাদের এই চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে লেখাটি পড়ে উপকৃত হয়েছেন। আমাদের টিম সর্বদা চেষ্টা করে যে আপনাদেরকে সঠিক তথ্য প্রদান করার। যদি আপনি এই চাহিদার স্থিতিস্থাপকতা কাকে বলে? লেখাটি পছন্দ করেন, তাহলে অবশ্যই লেখাটি অন্যদের সাথে শেয়ার করুন যাতে এটি পড়ে উপকৃত হয়।

পোষ্ট ক্যাটাগরি: