Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2021/09/Testosterone-Boosting-Foods.html

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা

শরীরে টেস্টোস্টেরন বাড়ানোর ১০টি সেরা খাবার — শরীরে টেস্টোস্টেরন কম এমন পুরুষ আমাদের চারপাশে কম নেই। আপনি জানলে অবাক হবেন আমাদের দেশে প্রতিবছর গড়ে প্রায় 20 লক্ষ পুরুষের শরীরে টেস্টোস্টেরন ঘাটতি দেখা দেয়। পরীক্ষা না করার কারণে অনেক সময় আমরা তার ধরতেই পারিনা। টেস্টোস্টেরন হরমোন বা পুরুষ হরমোন কম হওয়ার বেশ কিছু কারণ রয়েছে।

যেমনঃ নিয়মিত উচ্চ ফ্যাটযুক্ত খাবার, শরীরে ভিটামিন ডি এবং ক্যালসিয়ামের অভাব, সফট ড্রিংকস, ফরমালিন মেশানো খাবার, দুশ্চিন্তা বা বিষণ্নতা ইত্যাদি। মাইক্রোওয়েভে তৈরি রান্না কিন্ত টেস্টোস্টেরন হরমোনের ১২টা বাজায়। আর এই টেস্টোস্টেরন তৈরিতে বাধা মানে আপনার শারীরিক সমস্যা দেখা দেওয়া। 

সাধারণত বয়স ৩০ পার করার পর পুরুষের শরীরে টেস্টোস্টেরন হরমোনের পরিমাণ স্বাভাবিক ভাবেই কমতে শুরু করে। তবে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে নিয়মিত কিছু খাবার খাওয়ার অভ্যাস করলে কখনোই আর টেস্টোস্টেরনের ঘাটতি থাকবে না। পুষ্টি বিষয়ক একটি গবেষণায় শরীরে টেস্টোস্টেরন হরমোন নিঃসরণ বৃদ্ধির ক্ষেত্রে দ্রুত সাহায্য করে এমন কিছু খাবার নাম উঠে এসেছে। যা খাওয়ার 5 মিনিটের মধ্যে আপনার শরীরে টেস্টোস্টেরন বুস্ট করতে শুরু করবে। 

আজকের এই আর্টিকেলে সেই খাবারগুলো সম্পর্কে জানব তার আগে বলতে চাই খাবারের তালিকা থেকে দামি খাবার গুলো বাদ রেখেছি। তালিকায় রাখা হয়েছে সেই সমস্ত খাবার গুলো যেগুলো হাতের নাগালের মধ্যে যে কেউ কিনতে পারবেন তো চলুন শুরু করা যাক। 

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা

বাঁধাকপি

শরীরে টেস্টোস্টেরন বাড়ানোর ১০টি সেরা খাবারের প্রথম তালিকায় রয়েছে বাঁধাকপি। এই সবজিতে আছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ও খনিজ উপাদান আরো আছে ইনডোল-৩ কারবিনোল। এই উপাদানটি স্ত্রী হরমোন ইস্ট্রোজেনের পরিমাণ কমিয়ে টেস্টোস্টেরন হরমোন বেশি কার্যকর করে তোলে। 

রসুন

শরীরে টেস্টোস্টেরন বাড়ানোর ১০টি সেরা খাবারের তালিকার ২ নাম্বারে রয়েছে রসুন। রসুনের কার্যকারিতা সম্পর্কে নতুন করে বলার কিছু নেই। রসুনের অ্যালোসিন যৌগ মানসিক চাপের হরমোন কর্টিশলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে। ফলে শরীরের টেস্টোস্টেরন ভালোভাবেই কাজ করে। ভালো ফল পেতে প্রতিদিন 1 থেকে 2 কোয়া কাঁচা রসুন খাওয়ার অভ্যাস করুন। 

দুধ

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকার নাম্বার ৩ রয়েছে দুধ। যেসব খাবারে বেশি পরিমাণে প্রাণীজ ফ্যাট আছে এমন প্রাকৃতিক খাদ্য আপনার যৌন জীবনের উন্নতি ঘটায়। যেমনঃ খাঁটি দুধ, দুধের স্বর, মাখন ইত্যাদি। বেশিরভাগ মানুষই ফ্যাট জাতীয় খাবার এড়িয়ে চলতে চায়। কিন্তু আপনি যদি শরীরে এই টেস্টোস্টেরন হরমোন তৈরি হওয়ার পরিমাণ বাড়াতে চান তাহলে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট জাতীয় খাবারের দরকার পড়বে। তবে সবগুলোকে হতে হবে প্রাকৃতিক এবং স্যাচুরেটেড ফ্যাট। 

ডিম

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকার ৪ নাম্বারে রয়েছে ডিম। দেশি মুরগি বা হাসের ডিম এই ডিমে রয়েছে স্যাচুরেটেড ফ্যাট, ওমেগা-৩ এসিড, ভিটামিন-ডি, কোলেস্ট্ররল এবং প্রোটিন।টেস্টোস্টেরন হরমোন তৈরির জন্য এই উপাদান গুলো জরুরি। 

আদা 

আজকের এই টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা আর্টিকেলের ৫ নাম্বার তালিকায় রয়েছে আদা। 2012 সালে বিভিন্ন বয়সী ৭৫ জনের উপর একটি গবেষণায় দেখা গেছে টানা তিন মাস পর্যন্ত প্রতিদিন আদা সেবনের ফলে তাদের দেহের টেস্টোস্টেরনের পরিমাণ 17 দশমিক 7 শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। গবেষণায় এটিও উঠে এসেছে যে তাদের স্পামে গুনগত মানেও খুব ভালো পরিবর্তন হয়েছে। তাই নিয়মিত শুকনা বা কাচা আদা খাওয়ার অভ্যাস করুন। 

নারকেল তেল

আজকের এই টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা আর্টিকেলের ৬ নাম্বারে রয়েছে নারকেল তেল। প্রথমেই বলে নিতে চাই নারকেল তেল বলতে খাওয়ার জন্য যে আলাদা নারকেল তেল কিনতে পাওয়া যায় সেটির কথা বলা হয়েছে। নারকেল তেল স্যাচুরেটের ফ্যাটের উৎস। যার মধ্যে থাকে কোলেসট্রেল। যে কোলেসট্রেল থেকে আমাদের শরীরে টেস্টোস্টেরন তৈরি হয়। যদি আপনার শরীরের টেস্টোস্টেরন হরমোনের মাত্রা বাড়াতে চান তাহলে প্রতিদিন সকালে এক চামচ নারকেল তেল খেয়ে দেখতে পারেন।

কিছমিছ

আজকের এই টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা আর্টিকেলের তালিকার ৭ নাম্বারে রয়েছে কিসমিস। কিসমিসে রয়েছে অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি এবং উচ্চ পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। যা টেস্টোস্টেরনের বর্ধমান এবং ইস্ট্রোজেনের মাত্রা হ্রাসের সাথে যুক্ত হয়েছে। এছাড়াও 100 গ্রাম কিসমিসে 3 মিলিগ্রাম বোরন থাকে যা শরীরের টেস্টোস্টেরন বৃদ্ধির পক্ষে সহায়ক।

খেজুর 

আর্টিকেলের ৮ নাম্বারে যে খাবারটি রয়েছে তা হচ্ছে খেজুর। খেজুর পুষ্টি উপাদানে ভরপুর একটি ফল। নিয়মিত খেজুর খাওয়ার ফলে শরীরে শক্তি বৃদ্ধি পায় এটি দেহের টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধি সহ শুক্রাণুর মাত্রা বাড়ায়। আরব দেশগুলোতে খেজুরকে প্রাকৃতিক ভায়াগ্রা বলা হয়ে থাকে এর পুষ্টিগুণের কারণে।

কাঠ বাদাম 

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা আর্টিকেলের নাম্বার ৯ রয়েছে কাঠ বাদাম। নারী এবং পুরুষ উভয়ের জন্য প্রতিদিন এক মুঠো কাঠ বাদাম যথেষ্ট। এই বাদামে রয়েছে জিংক যা টেস্টোস্টেরন হরমোন বাড়ায়।

কালোজিরা

টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধির খাবার তালিকা আর্টিকেলের তালিকার শেষে আমরা যে খাবারটি রেখেছি তা হচ্ছে কালোজিরা। কালোজিরাকে মৃত্যু ব্যতিত সকল রোগের ঔষধ বলা হয়। শারীরিক সক্ষমতা বাড়ানোর জন্য কালোজিরাকে বিভিন্ন ভাবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। প্রতিদিন কালোজিরা ও মধু একসাথে খেলে শরীরে টেস্টোস্টেরন হরমোন দ্বিগুণ হারে বুস্ট হবে। আবার কালোজিরার তেল ব্যবহার করেও বিশেষ ফল পাওয়া যায়। কালোজিরা নারী-পুরুষ উভয়ের শারীরিক সক্ষমতা বাড়ায়। যদি আপনার শরীরে টেস্টোস্টেরনের মাত্রা কমে গিয়ে থাকে তাহলে এই খাবারগুলোর মাধ্যমে অনায়েসে আপনার শরীরে টেস্টোস্টেরন হরমোন বৃদ্ধি করে নিতে পারবেন।

আমাদের মতে সামর্থ্য অনুযায়ী এই খাবারগুলোর মধ্যে যেকোনো একটি খাবার প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় রাখা উচিত। এই খাবার গুলির মধ্যে কোন খাবারটি আপনার সবচেয়ে প্রিয় তা কমেন্টে জানিয়ে দিন।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

নটিফিকেশন ও নোটিশ এরিয়া