Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2021/05/black-fungus-on-skin.html

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস | ব্ল্যাক ফাঙ্গাস এর লক্ষণ

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস — সম্প্রতি সময়ে কয়েকজন কোভিড-১৯ (Covid-19) রোগীরা এই ব্ল্যাক ফাঙ্গাস ইনফেকশনে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ব্ল্যাক ফাঙ্গাস ইনফেকশন (Black Fungus) অবহেলা করলে মারাত্মক রূপ ধারণ করতে পারে। চিকিৎসকরা আরো বলেছেন মিউকোরমাইসেটেস নামক এই ছত্রাক থেকে শরীরের মধ্যে ইনফেকশন তৈরি হয়।

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস

ইতিমধ্যে ভারতের একাধিক রাজ্যে মহামারির আকার ধারণ করেছে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস। রাজ্যে যাতে এই ব্ল্যাক ফাঙ্গাস রোগ এর সংক্রমণের বিষয়ে প্রথম থেকেই কড়া নজর রাখা যায়, সেই জন্যে স্বাস্থ্য দফতরে নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। করোনাভাইরাস এর মধ্যে নতুন করে থাবা বসাচ্ছে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস (Black Fungus) অথবা মিউকোরোমাইকোসিস। সম্প্রতি সময়ে কয়েকজন কোভিড-১৯ (Covid-19) আক্রান্ত রোগীরা এই ব্ল্যাক ফাঙ্গাস ইনফেকশনে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। সামান্য ত্বক এর সমস্যা থেকে এই রোগটি শুরু হলেও এই সংক্রমণ ছড়াতে পারে ফুসফুস সহ মস্তিষ্কে।

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস কি

চিকিৎসকরা বলছেন, মিউকোরমাইসেটেস নামক এক ছত্রাক থেকে এই ইনফেকশনের তৈরি হয়। তবে, কোভিড-১৯ (Covid-19) আক্রান্তদের উপরে এটির প্রভাব পড়ে গুরুতর। শ্বাস-প্রশ্বাস নেওয়ার সময়ে ধুলোবালির সাথে মানবদেহে ঢুকে পরতে এই ছত্রাক। তবে হ্যাঁ এই ছত্রাক ছোঁয়াচে না। এটি একজন এর শরীর থেকে অন্যজনের শরীরের মধ্যে সংক্রমিত হয়না। সরকার এর পক্ষ্য থেকে এই রোগ নিয়ে সচেতনতা বাড়াতে কিছু নির্দেশিকা দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ লিভার ও কিডনি ভালো রাখার উপায়

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস রোগের লক্ষণ

ব্ল্যাক ফাঙ্গাস সম্পর্কে এক প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, এইসকল ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের লক্ষণগুলি দেখলে সতর্ক থাকতে হবে-

  1. মাথা ব্যথা
  2. জ্বর
  3. রক্তবমি
  4. নিঃশ্বাসের সমস্যা 
  5. মানসিক অবস্থার পরিবর্তন

  • নাক বন্ধ হয়ে আসা, নাকের মধ্যে থেকে চাপা রক্তের মতো অথবা কালো পুঁজ বাহির হওয়া, চোয়ালে ব্যথা, মুখ এর এক দিকে ব্যথা হওয়া, অবস হয়ে যাওয়া অথবা ফুলে যাওয়া।
  • অসাড় মুখ, নাক এর একদিকে বন্ধ, চোখে ফুলে যাওয়া অথবা ব্যথা। জ্বর, কাশি, মাথা ব্যাথা বা যন্ত্রণার মতো উপসর্গও ব্ল্যাক ফাঙ্গাস এর লক্ষণ।
  • প্রাথমিকভাবে ত্বক এর মধ্যে যেখানে আঘাত আছে, সেখানে এই রোগ সংক্রমণ হতে পারে। তারপর সেটি দ্রুত শরীরের অন্যান্য অংশের মধ্যে ছড়িয়ে যেতে পারে।
  • শরীরে ফোসকা, ত্বকে লালভাব-ফোলাভাবের মত উপসর্গ নিয়ে সতর্ক থাকার জন্য পরামর্শ দিচ্ছেন ডাক্তাররা।
  • দাঁতের মধ্যে ব্যথা অথবা দাঁত আলগা হয়ে যাওয়া।
  • দৃষ্টি ঝাপসা হয়ে যাওয়া অথবা দুটি করে জিনিস দেখা, জ্বর এবং ত্বকের সমস্যা।
  • বুকের মধ্যে ব্যথা, নিঃশ্বাসের সমস্য বৃদ্ধি পাওয়া।
  • বিশেষজ্ঞদের মতে, অসাড় মুখ, নাক এর মধ্যে একদিক বন্ধ, চোখে ফুলে যাওয়া অথবা ব্যথার মতো উপসর্গগুলো দেখা দিলেই ডাক্তারদের সাথে পরামর্শ নিন। চিকিৎসকদের পরামর্শ মতো যত তারাতারি সম্ভব অ্যান্টি-ফাঙ্গাস থেরাপি শুরু করে ফেলতে হবে। এড়িয়ে চলতে হবে ধুলো-বালির সাথে সরাসরি সংস্পর্শ। মাটি অথবা শ্যাওলা নিযে ঘাঁটাঘাটির সময়ে জুতা, লম্বা প্যান্ট পরিধান করতে হবে। সাবান ও জল দিয়ে ত্বকের আঘাত পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

সর্বশেষ আপডেটেড অফার পেতে চান?

নটিফিকেশন ও নোটিশ এরিয়া