Technical Care BD https://www.technicalcarebd.com/2021/06/The-Best-Messaging-Apps-for-Android-and-iOS.html

স্মার্টফোনে সেরা মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ

সেরা মোবাইল মেসেজিং অ্যাপস — স্মার্টফোনের সহজলভ্যতার বদৌলতে হ্রাস পেয়েছে এসএমএস SMS কিংবা গতানুগতিক ফোনে কথা বলার চাহিদা। ঠিক বর্তমানে সেই জায়গাটি দখল করেছে মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ্লিকেশান সমূহ। স্মার্টফোন ইউজারদের কমবেশি সকলেই প্রয়োজনের সময় এক অথবা একাধিক মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ ব্যবহার করেন।

স্মার্টফোনে সেরা মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ

সাধারণ মেসেজিং অ্যাপ এবং চিরাচরিত টেক্সট মেসেজিং এর মাঝে পার্থক্য আছে। একেক জনের কাছে আদর্শ মেসেজিং অ্যাপের সংজ্ঞা একেক রকমের। তবে বেশিরভাগ মানুষই পরিবার এবং বন্ধুরা ব্যবহার করে এমন মেসেজিং ও কলিং অ্যাপই ব্যবহার করেন। তাহলে চলুন জেনে নেই, স্মার্টফোনের সেরা ১০টি মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ সম্বন্ধে।

হোয়াটসঅ্যাপ | মোবাইলের জন্য শীর্ষ বিনামূল্যে মেসেজিং অ্যাপ্লিকেশন

খুবই সহজেই সেট আপ করা যায় এবং সম্পূর্ণ বিনামূল্য বলে স্মার্টফোনে মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ হিসেবে হোয়াটসঅ্যাপ ছাড়িয়ে গেছে আজকের এই তালিকায় থাকা অন্য সকল অ্যাপের জনপ্রিয়তার মাইলফলক। সাধারণ চ্যাটিং করার পাশাপাশি হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে শেয়ার করতে পারবেন ছবি, ফাইল, কন্টাক্ট এমনকি লোকেশনও। হোয়াটসঅ্যাপে সর্বোচ্চ ৮ জন একই অডিও এবং ভিডিও কলে যুক্ত হতে পারেন।

হোয়াটসঅ্যাপ হচ্ছে মূলত ফোন নাম্বার ভিত্তিক হওয়ায় এটি ইউজারের কন্টাক্ট তালিকায় থাকা ফোন নাম্বারের মধ্যেকার সকল হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারকারীকে অটোমেটিকভাবে যুক্ত করে নেয়। বিপুল ভাবে জনপ্রিয়তা এবং ফেসবুকের নিয়ন্ত্রাধীন হওয়া স্বত্বেও এন্ড-টু-এন্ড এনক্রিপশনের বদৌলতে হোয়াটসঅ্যাপে টপ লেভেলের প্রাইভেসি ও সিকিউরিটি পাওয়া যায়।  

 হোয়াটসঅ্যাপ ডাউনলোড করুন

এন্ড্রয়েড আইফোন

টেলিগ্রাম – Telegram | স্মার্টফোন এর জন্য মেসেজিং অ্যাপ

স্মার্টফোনের জন্য মেসেজিং অ্যাপের তালিকায় আমরা দ্বিতীয় স্থানে রেখেছি প্রাইভেসি এবং স্পিড ফোকাসড মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ টেলিগ্রাম। স্মার্টফোন এবং ডেস্কটপ উভয় মাধ্যমেই ব্যবহার করা যাবে টেলিগ্রাম। ক্লাউডে সেভ করা যাবে টেলিগ্রামের চ্যাটসমূহ। তাছাড়াও থাকছেনা শেয়ারকৃত ফাইল এর কোনো সাইজ লিমিট। মানে যেকোনো সাইজের ফাইলই আপনি টেলিগ্রাম অ্যাপের মাধ্যমে শেয়ার করতে পারবেন।

টেলিগ্রামের চ্যাট ২৫৬ বিট সিনেট্রিক এনক্রিপশন, ২০৪৮ বিট আরএসএ RSA এনক্রিপশন ও ডিফি-হেলম্যান সিকিউর কি এক্সচেঞ্জ দ্বারা নিরাপদ বা সুরক্ষিত। টেলিগ্রাম অ্যাপে স্টিকার এবং গিফ GIF সাপোর্টের পাশাপাশি থাকছে ফটো ও ভিডিও এডিটিং করার সুবিধাও। টেলিগ্রাম অ্যাপের সবথেকে অসাধারণ ফিচার হ'ল এটির উন্নত গ্রুপ চ্যাট সিস্টেম। একটি টেলিগ্রাম গ্রুপে সর্বোচ্চ ২,০০,০০০ জনকে যুক্ত করা সম্ভব। ডোনেশনের মাধ্যমে পরিচালিত টেলিগ্রাম সম্পূর্ণ বিনামূল্য একটি মেসেজিং অ্যাপ এবং টেলিগ্রাম ইউজারদের তথ্য সুরক্ষায় বদ্ধ পরিকর।

আরও পড়ুনঃ মোবাইল দিয়ে টাকা আয় করুন 2021 | Android Apps দিয়ে টাকা আয় করুন

 টেলিগ্রাম ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

ফেসবুক মেসেঞ্জার অ্যাপ – Facebook Messenger | সেরা ফেসবুক ম্যাসেঞ্জার অ্যাপস

যারা প্রতিনিয়ত ফেসবুক ব্যবহার করে থাকেন, তারা কোনো না কোনোভাবে ফেসবুকের মেসেজিং অ্যাপ মেসেঞ্জার সম্পর্কে অবশ্যই অবগত আছেন। ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থাকলে মাত্র এক ক্লিক করেই মোবাইলে ব্যবহার করা যায় মেসেঞ্জার অ্যাপ। তাছাড়াও ডেস্কটপে ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ব্যবহার করা যায় মেসেঞ্জার। চ্যাট হেডের মতো অ্যাপের বাইরেও চ্যাট করার সুবিধা মেসেঞ্জার এর জনপ্রিয়তাকে অন্য মাত্রায় নিয়ে গিয়েছে।

মেসেঞ্জার অ্যাপের বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে বলে শেষ করা যাবেনা। ২৪ ঘন্টা মেয়াদি পোস্ট শেয়ারিং, স্টোরি এর পাশাপাশি লোকেশন, ছবি, ভিডিও শেয়ার করার সুবিধা তো থাকছেই এই মেসেঞ্জার অ্যাপে।

সম্প্রতি মেসেঞ্জারে অ্যাপে অ্যাড হচ্ছে রুমস সুবিধা, যেখানে লিংকের মাধ্যমে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট না থাকলেও সর্বোচ্চ পঞ্চাশ জন একই গ্রুপ কলে যুক্ত হতে পারবেন। মেসেঞ্জার অ্যাপে আরো একটি সুবিধা যুক্ত হয়েছে ভ্যানিশিং মেসেজ অর্থাৎ আপনি মেসেজ করার পর যেকোনো সময়ে সেই মেসেজ রিমুভ করতে পারবেন। মেসেঞ্জারে আপনি সর্বোচ্চ ২৫০ জনকে নিয়ে একটি গ্রুপ চ্যাট খুলতে পারবেন। এছাড়াও ফ্রি অডিও এবং ভিডিও চ্যাটে সর্বোচ্চ ৫০ জন পর্যন্ত অ্যাড হতে পারবেন।  

 মেসেঞ্জার ইন্সটল করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

স্কাইপ – Skype | মেসেজিং apps

একটা সময় ছিল যে, যখম মেসেজিং অ্যাপের মার্কেটে শুধুমাত্র একাই রাজত্ব করতো স্কাইপ। তবে তারা যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে নিজেদেরকে আপডেট না করতে পারায়, বেশ খানিকটা পিছিয়ে গেছে এক সময়ের জনপ্রিয় সেই মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ স্কাইপ। টেক্সট চ্যাটিং করার পাশাপাশি ভিডিও এবং অডিও কলিং এর সুবিধা আছে স্কাইপে। স্কাইপে অন্যতম প্রধান বৈশিষ্ট্য হচ্ছে ইউজারদের স্কাইপ ব্যবহার করে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ ফি প্রদান করে আসল ফোন নাম্বারেও কল করার সুবিধা পাবেন। স্কাইপ অ্যাপটি ক্রস প্ল্যাটফর্ম সাপোর্টেড। সাধারণ চ্যাটিং অ্যাপ বৈশিষ্ট্য সমূহ হচ্ছে যেমন – ফাইল সেন্ডিং, স্টিকার ইত্যাদি তো আছেই। 

আরও পড়ুনঃ প্রসেসর কি | প্রসেসর কি কোনটা দরকার

 স্কাইপ ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

স্ন্যাপচ্যাট – SnapChat | সেরা এন্ড্রয়েড ফ্রি কলিং এবং চ্যাটিং এপস

সেলিব্রেটিদের দ্বারা জনপ্রিয়তা অর্জন করা অ্যাপ হচ্ছে স্ন্যাপচ্যাট। আর এই অ্যাপটি বর্তমান তরুণ সমাজের মাঝে ব্যাপকভাবে জনপ্রিয়। তবে স্ন্যাপচ্যাট অ্যাপ হচ্ছে অন্যান্য গতানুগতিক মেসেজিং অ্যাপের চেয়ে অনেকটাই ভিন্ন। ফিচারের দিক থেকে স্ন্যাপচ্যাট এর লিস্ট অন্যান্য সব অ্যাপগুলোর থেকে ছোটো হলেও এর মধ্যকার সকল ফিচারই ইউজারদের হাতের মুঠোয়। যার কারণে এতো সকল অ্যাপের ভিড়ে জনপ্রিয়তায় তেমন কোন একটা ধ্বস আসেনি স্ন্যাপচ্যাট অ্যাপের। স্ন্যাপচ্যাটে ইউজার নিজেদের ছবির পরিবর্তে এভেটার ব্যবহার করতে পারেন তাদের প্রোফাইল পিকচার হিসেবে।

স্ন্যাপচ্যাট অ্যাপের আছে ভয়েস কলিং, ভিডিও মেসেজ, ফটো মেসেজ এবং সাধারণ টেক্সট মেসেজিং এর সুবিধা। স্ন্যাপচ্যাট অ্যাপে প্রেরণকৃত মেসেজ একবার দেখার পরেও তা ভ্যানিশ হয়ে যায়, যার কারণে দুইজন ব্যাক্তির মধ্যকার সকল কথোপকথন তৃতীয় ব্যাক্তির দ্বারা দেখা সম্ভবপর হয়না। তাছাড়াও যদি কেউ চ্যাটের স্ক্রিনশটও নিয়ে নেয়, সেটিও অন্যপ্রান্তের বার্তা প্রেরণকারীকে জানিয়ে দিবে স্ন্যাপচ্যাট। স্ন্যাপচ্যাট অ্যাপে আছে ছবি তোলা এবং ভিডিও রেকর্ডের বিভিন্ন লাইভ ফিল্টার যা ইউজারদের মধ্যে অনেক বেশি জনপ্রিয়।

স্ন্যাপচ্যাটের সবচেয়ে জনপ্রিয় বৈশিষ্ট্য হচ্ছে স্টোরিস। স্টোরিস হচ্ছে ২৪ ঘন্টা মেয়াদি পোস্ট, যেটি পোস্টকারীর ফলোয়াররা দেখতে পারে। এই ফিচারটি এতোটাই বেশি জনপ্রিয় হয় যে, ফেসবুক অনেকটা বাধ্য হয়েই তাদের অ্যাপ মেসেঞ্জার, হোয়াটসঅ্যাপ এবং ইন্সটাগ্রামে অ্যাপগুলোতে ফিচারটি যুক্ত করে। এছাড়াও স্ন্যাপচ্যাটের এই যুগান্তকারী ফিচার টুইটার, এমনকি লিংকড ইন কর্তৃপক্ষকে নাড়া দেয়। যার ফলে প্ল্যাটফর্ম গুলোতেও অ্যাড হয়েছে স্টোরিস। 

 স্ন্যাপচ্যাট ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

ভাইবার – Viber | সেরা মেসেজিং অ্যাপ

বর্তমানে অসংখ্য মেসেজিং অ্যাপের ভিড়ে মেসেজিং অ্যপ হিসেবে ভাইবার অ্যাপে জনপ্রিয়তা কমে গেলেও, ফিচারের বিবেচনায় কোনোভাবেই কোনো দিক দিয়েই পিছিয়ে নেই ভাইবার অ্যাপটি। বিশ্বব্যাপী ১ বিলিয়নেরও বেশি ইউজার নিয়ে ভাইবার জনপ্রিয় মেসেজিং ও কলিং অ্যাপের তালিকায় খুব সহজেই স্থান করে নিয়েছে। ভাইবার অ্যাপে আছে সাধারণ মেসেজিং, গ্রুপ চ্যাটিং সুবিধা, সেল্ফ-ভিডিও মেসেজিং, ডিস্ট্রাকটিং মেসেজ ও চ্যাটিং এর মক্ত অসংখ্য ফিচার। আরো থাকছে স্টিকার, বিশ্বের সব খবরা খবরের মতো বাড়তি কিছু ফিচারও। তবে যারা মেসেজিং অথবা চ্যাটিং করার জন্য সিম্পল এবং ক্লিন ইন্টারফেস পছন্দ করেন তবে ভাইবার তাদের জন্য না। 

আরও পড়ুনঃ ৩০ পয়সা মিনিটে কথা বলার নতুন অ্যাপ | Alaap | কম খরচে কথা বলার এপস

 ভাইবার ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

উইচ্যাট – WeChat

১ বিলিয়নের এর অধিক ইউজার নিয়ে চীনের সবথেকে জনপ্রিয় অ্যাপ হচ্ছে উইচ্যাট। মেসেজিং করার পাশাপাশি ছবি শেয়ারিং, অডিও এবং ভিডিও কলিং এর সুবিধা আছে অ্যাপটিতে। এছাড়াও আরও আছে বন্ধুদের সঙ্গে লোকেশন শেয়ার করার সুবিধা। পেমেন্ট গেমসের মতো আরও অসংখ্য ফিচারে ভর্তি এই উইচ্যাট অ্যাপে। এমনকি Wear অপেরাটিং সিস্টেম এবং অ্যাপল ওয়াচ এ ব্যবহার করা যায় অ্যাপটি। 

 উইচ্যাট ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

লাইন – Line

৬০০ মিলিয়ন ইউজারদের নিয়ে এশিয়া মহাদেশে ব্যাপকভাবে জনপ্রিয়, মেসেজিং ও কলিং অ্যাপ হচ্ছে লাইন অ্যাপ। সাধারণ মেসেজিং ফিচারসমুহের পাশাপাশি এই অ্যাপকে ফেসবুকের সঙ্গে তুলনা করা চলে। লাইন অ্যাপে পোস্ট করা যায় ও বন্ধুরা পোস্টে কমেন্ট করার সুযোগ পায়। 

লাইন অ্যাপ ইউজ করে ফ্রিতে ল্যান্ডলাইনেও কল সম্ভব। তাছাড়াও লাইন অ্যাপ ইউজাররা একজন অপরকে মেসেজ পাঠানোর পাশাপাশি অডিও এবং ভিডিও কলের সুবিধাও আছে। লাইন অ্যাপে ক্যারেক্টার সমন্ধিত স্টিকার আছে, যা ইউজারদের মাঝে বিপুল জনপ্রিয়। লাইন অ্যাপে চ্যাট গ্রুপে সর্বোচ্চ ৫০০ জন পর্যন্ত হতে অ্যাড হতে পারেন।

এছাড়াও লাইন অ্যাপের মধ্যে আর্টিস্ট এবং ব্যান্ডকে ফলো করার মতো ফিচারটিও আছে। লাইন অ্যাপে অ্যালবাম সেট আপ এর পাশাপাশি বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ারও করতে পারবেন। আর আছে একই সঙ্গে বন্ধুদের সাথে কলে থাকা অবস্থাতে ইউটিউব ভিডিও দেখার সুবিধাটিও আছে। 

 লাইন ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

 আইফোন

ডিসকর্ড – Discord

মূলত ভিডিও গেমারদের জন্য তৈরি ২০১৫ সালে মুক্তি পাওয়া এই ডিসকর্ড অ্যাপ। বর্তমানে মাসিক ৫৬ মিলিয়ন এর চেয়েও বেশি নিয়মিত ইউজারের পাশাপাশি মোট ২৫০ মিলিয়ন ব্যবহারকারী আছে ডিসকর্ড অ্যাপে। প্রাইভেট গ্রুপ চ্যাটে একই সঙ্গে ১০ জন ভয়েস কলের মাধ্যমে যুক্ত হতে পারে ডিসকর্ড অ্যাপে, যা গেমারদের জন্য গেমিং করার সময় টিম ম্যানেজমেন্টে সুবিধা প্রদান করে।

ডিসকর্ড অ্যাপে আছে চ্যানেল নামক গ্রপ চ্যাটের সুবিধা, যার মাঝে আবার ভিন্ন ভিন্ন ধরনের আড্ডার জন্য আলাদা আলাদা সাব গ্রুপ তৈরী করতে পারবেন। গ্রুপ এর পাশাপাশি  সাব গ্রুপগুলোর ও আলাদা সেটিংস আছে, যা গ্রুপ চ্যাটিংকে আরও ফ্লেক্সিবল করছে। তবে ডিসকর্ড অ্যাপে এন্ড-টু-এন্ড এনক্রিপশন ফিচার ব্যবহার করেনা। তাই যারা সিকিউর এবং প্রাইভেসি ফোকাসড মেসেজিং এবং কলিং অ্যাপ খুজছেন, ডিসকর্ড অ্যাপ তাদের জন্য আদর্শ পছন্দ নাও হতে পারে। 

আরও পড়ুনঃ অনলাইন থেকে আয় করার সহজ উপায়

 ডিসকর্ড ডাউনলোড করুন

 অ্যান্ড্রয়েড

 আইফোন

সিগন্যাল – Signal

চ্যাট এনক্রিপশন এবং সিকিউরিটির দিকে বিবেচনা করলে ওপেন হুইসপার সিস্টেমসের অ্যাপ সিগন্যাল অ্যাপটি আপনার একটি অসাধারণ চয়েস হতে পারে। সকল মেসেজিং এবং ভয়েস কলিং মিলিটারি গ্রেড এনক্রিপশন প্রদান করে এই সিগন্যাল অ্যাপটি। অ্যাপটিতে আছে ভয়েস কল, টেক্সট, গ্রুপ মেসেজ এবং এটাচমেন্ট সেন্ডিংয়ের সুবিধা। এডওয়ার্ড স্নোডেনের মতো এক্সপার্ট সিগন্যাল অ্যাপটিকে সবথেকে সিকিউরড মেসেজিং অ্যাপের আখ্যা দিয়েছেন এই সিগন্যাল অ্যাপটিকে। সিগন্যাল অ্যাপে আছে ইমেজ এডিটর, স্টিকার এমনকি মেসেজে ইমুজি দ্বারা রিয়েক্ট দেওয়ার সুবিধা। 

 সিগন্যাল ডাউনলোড করুন

 এন্ড্রয়েড

আইফোন

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

নটিফিকেশন ও নোটিশ এরিয়া